রাজ্যে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত ১১ আক্রান্ত বেড়ে ৪৯,

আজবাংলা     গত চব্বিশ ঘণ্টায়  রাজ্যে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত ১১ আক্রান্ত বেড়ে ৪৯। শনিবার বিকালে নবান্নে সাংবাদিক বৈঠক করে জানালেন মুখ্যসচিব। তিনি জানান, রাজ্যে আরও বেশি করোনা পরীক্ষা কেন্দ্র দরকার। তা বাড়ানোর জন্য অনুমতি চাওয়া হয়েছে। রাজ্যে এই মুহূর্তে করোনা পরীক্ষার জন্য সাতটি কেন্দ্র রয়েছে৷ এর মধ্যে পাঁচটি সরকারি এবং দু'টি বেসরকারি হাসপাতাল রয়েছে৷ আরও বেশ কয়েকটি পরীক্ষাকেন্দ্র চালু করার জন্য আইসিএমআর-এর কাছে অনুমোদন চাওয়া হয়েছে৷ গোটা রাজ্যে সরকারি বেসরকারি মিলিয়ে মোট ৫৯টি হাসপাতালে করোনা চিকিৎসার পরিকাঠামো গড়ে তোলা হয়েছে৷ ১০৪০ জনের পরীক্ষা হয়েছে।শুক্রবার ১৩ হাজার পিপিই হয়েছে।আইডি হাসপাতাল থেকে ছুটি হচ্ছে ৪ জনের মাত্র ২ জনের চিকিত্সার ক্ষেত্রে সমস্যা হচ্ছিল। তাঁদের অন্য সমস্যা ছিল। বাকি সবাই সুস্থ রয়েছেন। আরও পাঁচ জন সুস্থ হয়েছেন।দিল্লির নিজামুদ্দিনের ধর্মীয় জমায়েতে যোগদানকারী হলদিয়া বন্দরের যে শ্রমিকের শরীরে করোনা সংক্রমণ পাওয়া গিয়েছে, তাঁর পরিবার এবং সংস্পর্শে আসা সবাইকেই কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে৷ জীবাণুমুক্ত করা হয়েছে গোটা হলদিয়া বন্দর৷ রাজ্য সরকার মোট ৫১৬টি কোয়ারেন্টাইন সেন্টার তৈরি করেছে৷ আপাতত ২৬২৬ জন সরকারি কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে রয়েছেন৷ ৫২০৮০ জন রয়েছেন হোম কোয়ারেন্টাইনে৷ হোম কোয়ারেন্টাইন থেকে ৩০৩৬ জনকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে৷ সরকারি কোয়ারেন্টাইন সেন্টার থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৩৩৮৬ জন৷ রাজ্যের মুখ্যসচিব এ দিন দাবি করেছেন, করোনা ভাইরাস নিয়ে তথ্য চেপে গোপন করার কোনও চেষ্টা করছে না সরকার৷মুখ্যসচিবের কথায় বায়োলজি নিজের নিয়মে চলে। তবে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আমরা জয়ী হবই। সাধারণ মানুষকে লকডাউন মেনে চলার আবেদন করেন মুখ্যসচিব।