পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকির বাড়িতে মিমের সভাপতি আসাদউদ্দিন ওয়াইসি

পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকির বাড়িতে  মিমের সভাপতি আসাদউদ্দিন ওয়াইসি

২০২১-এ এক ধর্মগুরু বাংলার রাজনৈতিক ময়দানে লড়বেন। ফুরফুর শরিফের পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকি নতুন রাজনৈতিক দল করবেন বলে ঘোষণা করেছেন। রবিবার সকাল। ফুরফুরা শরিফের পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকির বাড়িতে পৌঁছে গেলেন মজলিস-ই-ইত্তেহাদ-উল-মুসলিমিন তথা মিমের সভাপতি আসাদউদ্দিন ওয়াইসি।

গত মাসেই বাংলার চার জেলা থেকে চব্বিশ জন সংখ্যালঘু নেতা হায়দরাবাদে গিয়ে ওয়াইসির সঙ্গে বৈঠক করেন। ওই বৈঠকে স্থির হয়, সম্ভাব্য কত আসনে প্রার্থী দেওয়া যাবে তা নিয়ে যেন এখন থেকে সমীক্ষা করা হয়। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী দেবে ফুরফুরা শরিফের পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকির দল।

উত্তর ২৪ পরগনা, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি–সহ বিভিন্ন জেলার একাধিক আসনে তাঁরা প্রার্থী দেবেন। এই দুই উগ্র এবং আগ্রাসী সংখ্যালঘু নেতাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিরোধী। আগে আব্বাস স্থির করেছিলেন পৃথক দল করে একুশের ভোটে লড়বেন। কিন্তু সূত্রের মতে, ওয়াইসি চাইছেন আব্বাস তাঁর দলেই যোগ দিন। আব্বাস মিমে যোগ না দিলেও যাতে একুশের ভোটে বাংলায় সংখ্যালঘুদের বৃহত্তর মহাজোট হয় সেই চেষ্টায় রয়েছেন ওয়াইসি।  

বাংলার নানান জায়গায় ইতিমধ্যেই সভা সমাবেশ করছেন ফুরফুরা শরিফের পীরজাদা। এদিকে আসন্ন ভোটে বাংলায় প্রার্থী দেওয়ার কথা জানিয়ে রেখেছেন মিম প্রধান আসাউদ্দিন ওয়েইসি। এই প্রেক্ষাপটে বিধানসভা ভোটের আগে দুই সংখ্যালঘু সংগঠনের নেতৃত্বের বৈঠক যথেষ্ট তাৎপর্যবাহী বলেই মনে করা হচ্ছে।