স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বাতাবি লেবু

স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বাতাবি লেবু

সুগন্ধি ফল হিসেবে লেবু খুবই পরিচিত। লেবুর মধ্যে বাতাবি লেবু প্রায় সবারই খুব প্রিয়। বাতাবি লেবুকে অনেকে জাম্বুরাও বলে থাকেন। অনেকেই জানে না  এই লেবু সুস্বাদু হওয়ার পাশাপাশি একাধিক জটিল রোগের ওষুধও বটে। বাতাবি লেবুর ভেতরের রসাল কোষগুলো সাধারণত হয়ে থাকে লাল, হলুদ ও গোলাপি।আসুন জেনে নিই এই লেবুর উপকারিতা—

হৃদরোগে উপকারি : বাতাবি লেবুতে আছে যথেষ্ট পরিমান পটাশিয়াম ও ভিটামিন সি। ফলে বাতাবি লেবু রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। আর নিয়ন্ত্রিত রক্তচাপ হৃদরোগে উপকারি। সেই কারণে হার্টের সমস্যা থাকলে প্রচুর পরিমাণে বাতাবি লেবু খাওয়া উচিত। 

ক্যানসার প্রতিরোধ : বাতাবি লেবু আন্ত্রিক, অগ্ন্যাশয় ও স্তন ক্যানসার প্রতিরোধ করে। এর লিমোনয়েড নামক উপকরণ ক্যানসারের জীবাণুকে ধ্বংস করে। 

দাঁত ও মাড়ির রোগে : দাঁত ও মাড়ির রোগে বাতাবি লেবুর পাতা ব্যবহার করা হয়। বাতাবি লেবুর রস মাড়ির রোগে উপকারী।

হজমের সমস্যা কমায় : বাতাবি লেবুতে প্রচুর পরিমাণে রয়েছে এন্টিঅক্সিডেন্ট ও ফাইবার রয়েছে। বাতাবি লেবুর সাইট্রিক অ্যাসিড হজমে সহায়ক এবং পেটে গ্যাসের প্রবণতা কমায়।

রক্ত পরিষ্কার করে :  বাতাবি লেবুতে বিদ্যমান পেকটিন ধমনীর রক্তে দূষিত পদার্থ জমা হতে বাধা দেয়।  দূষিত পদার্থ বের করতে সহায়তা করে বাতাবি লেবু। বাতাবি লেবুর রস বিশুদ্ধ অক্সিজেন পরিবহনে সহায়তা করে।

লিভার ভালো রাখতে : বাতাবি লেবু লিভার ভালো রাখতে খুবই কার্যকর। জন্ডিস রোগের ক্ষেত্রে বাতাবি লেবু প্রচুর পরিমাণে খাওয়া উচিত। 

 প্রতি ১০০ গ্রাম বাতাবি লেবুতে শর্করার পরিমাণ ৯.৩ গ্রাম, ক্যালরি পাওয়া যায় ৩৮ কিলোক্যালরি, মুক্ত চিনি পাওয়া যায় প্রায় সাত গ্রাম। বিটা ক্যারোটিন আছে প্রায় ১২০ মাইক্রোগ্রাম, ভিটামিন প্রায় ৬০ গ্রাম। কিছু পরিমাণে আছে ভিটামিন বি। কিছু পরিমাণ আছে প্রোটিন ও ফ্যাট।