খেয়ে দেখুন বেগুনের এই নতুন রেসিপিটি

খেয়ে দেখুন বেগুনের এই নতুন রেসিপিটি

আজবাংলা  এতদিন বেগুন দিয়ে নানারকমের রান্না হয়ে থাকে। নিরামিষের দিন বেগুন দিয়ে করা একটা পদ ঠিকই থাকে। সে বেগুন ভাজা থেকে শুরু করে বেগুনি কিংবা বেগুন ঝোলে দিয়ে কোন একটা বিশেষ পদ। আজকে যে রেসিপিটি বলতে চলেছি আপনাদের, সেটি কিন্তু একেবারেই নিরামিষ পদ নয়। আজকের রেসিপিটি হল পুরে ভরা বেগুন।

আসুন, দেখে নিন এটি করতে কি কি উপকরন লাগবে ও কীভাবে করবেন। উপকরন- ১} বেগুন নিতে হবে ২টি। ২} চিকেনের কিমা / চিংড়ির কিমা ১/২ কাপ। ৩} ডিম লাগবে ১টি। ৪} চিজ ইচ্ছে মত ৫} ভাত ১কাপ মত। ৬} পেয়াজ কুচি আধা কাপ মত। ৭} রসুনের কুচি ১চা চামচ। ৮} গাজর,ক্যাপসিকাম ১/২ কাপ।

৯} টমেটো কুচি ২টে চামচ। ১০} লঙ্কার গুঁড়ো ১ চা চামচ। ১১} হলুদ গুঁড়ো আধা চা চামচ। ১২} জিরে গুঁড়ো আধা চা চামচ। ১৩} ধনেপাতা কুচি ২ চামচ। ১৪} তেল পরিমান মতো। ১৫} নুন আপনার স্বাদমতো।

প্রণালী- ১} বেগুণ বোঁটাসহ মাঝ বরাবর দুইভাগ করে কেটে নিতে হবে। ২} এখন বেগুনের ভেতরের শাঁসটুকু ছুরি দিয়ে কেটে চামচ দিয়ে বের করে নিতে হবে। ৩} বেগুনটা নৌকার মতো হলে ভেতরে হলুদ আর নুন দিয়ে মাখিয়ে রাখতে হবে মিনিট চারেক। ৪} এরপর সেই ভিতরের শাসগুলিকে ছোট ছোট টুকরো করে রাখতে হবে।

৫} এরপর প্যানে তেল গরম হয়ে গেলে পেয়াজ কুচি দিয়ে দিতে হবে। ৬} পেঁয়াজ নরম হয়ে এলে সব মসলা দিয়ে কষিয়ে নিতে হবে।৭} এবার ভালোভাবে মসলা কষানো হয়ে গেলে ওই মাংসের কিমা, বেগুনের শাস, গাজর ও ক্যাপসিকাম কুচি ও রান্না করা ভাত মিশিয়ে আঁচ কমিয়ে ঢাকনা দিয়ে রাখুন। ৮} এরপর তেল উপরে উঠে এলে নামিয়ে নিতে হবে। ৯} এবার এই পুর টুকু নিয়ে সমান ৪ ভাগ করে নিতে হবে।

১০} এরপর একটি বেকিং ট্রেতে তেল ব্রাশ করে বেগুনের নৌকা নিন। এরমধ্যে পুর ভরে দিন। ১১} এবার আন্দাজ ২০০ ডিগ্রী তাপমতাত্রায় ২৫ থেকে ৩০ মিনিট মত বেক করে বেগুন সিদ্ধ হলে নামিয়ে নিতে হবে।এরপর চিজ, কাচালঙ্কা কুচি, ধনেপাতা কুচি ও ফেটানো ডিম দিয়ে আরও ৫ মিনিট বেক করে নিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।