দিনে কতটা হাঁটলে শরীরের বাড়তি মেদ ঝড়ানো সম্ভব জানেন?

দিনে কতটা হাঁটলে শরীরের বাড়তি মেদ ঝড়ানো সম্ভব জানেন?

আজ বাংলা:     মেদ...আমাদের জীবনে যেন রাহু। এদিকে করোনা অতিমারির ফলে মানুষ ঘরবন্দি। বন্দি জীবন। বাড়ছে মেদ। তবে আপনি জানেন কি যে নিয়মিত হাঁটাহাঁটির মাধ্যমে ওজন কমানো সম্ভব। হাঁটার উপকারিতা স'ম্পর্কে সবাই কমবেশি জা'নেন! শা'রীরিক কসরতের প্রথম ধাপ বলতে গেলে হাঁটা। সু'স্থ থাকার পাশাপাশি শ'রীরের অতিরি'ক্ত ওজন কমাতে হাঁটার বিকল্প নেই। 

তবে অনেকেই হয়তো এটা জা'নেন না যে, দিনে কতটুকু হাঁটা উচিত? তাহলে আসুন সে স'ম্পর্কে জেনে নিন...  বয়স এবং ক'র্মক্ষ'মতার ওপর ওজন কমাতে হাঁটার পরিমাণ নির্ভর করে। বলা হয়, যারা ওজন কমাতে সবে মাত্র হাঁটা শুরু ক'রেছেন তাদের দিনে অন্ত'ত পাঁচ মাইল হাঁটা উচিত। ‘

ব্রাজিলিয়ান জার্নাল অব ফিজিকাল থেরাপি’তে অন্তর্ভুক্ত ২০১৬ সালের একটি গবেষণায় জা'না যায়, স্থূলকায় একজন প্রতিদিন যদি প্রায় ১০ হাজার পদক্ষে'প হাঁটেন (প্রায় ৫ মাইল) তবে সে ১২ সপ্তাহে গড়ে ৩.৪ পাউন্ড বা দেড় কেজি ওজন কমাতে সক্ষম হন।

এছাড়া ২০০৮ সালে করা ‘জার্নাল অব ফিজিকাল অ্যাক্টিভিটি অ্যান্ড হেল্থ’য়ে প্র'কাশিত তিন হাজার সু'স্থ অংশগ্রহণকারীর পর্যবেক্ষণমূলক একটি গবেষণার ফলাফলে দেখা গেছে, ওজন কমাতে ১৮ থেকে ৪০ বছর বয়সী নারীদের দৈনিক অন্ত'ত ১২ হাজার পদক্ষে'পে (প্রায় ৬ মাইল) হাঁটতে হবে।

পুরুষেরও একই দূ'রত্বে হাঁটতে হবে বয়স ৫০ পর্যন্ত। এরপর মাত্রা কমিয়ে আনতে হবে ১১ হাজার পদক্ষে'পে অর্থাৎ প্রায় সাড় ৫ মাইল। ৪০ থেকে ৫০ বছর বয়সী নারীদের নিতে হবে ১১ হাজার পদক্ষে'প।

ওজন কমানোর জন্য যখন হাঁটা শুরু করা হয় তখন মনে রাখতে হবে শুধু শা'রীরিক ক'র্মকাণ্ডই নয়, খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তন না করলে কাঙ্ক্ষিত ফল পাওয়া যাবে না।

‘ওবেসিটি’ জার্নালে ২০১২ সালে করা একটি গবেষণার ফলাফল থেকে জা'নানো হয়, অংশগ্রহণকারীরা ১২ মাসে শুধু ব্যায়াম করে ২.৪ শতাংশ শ'রীরের মেদ কমিয়েছেন। অন্যদিকে খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তন এবং ব্যায়াম করে মেদ কমেছে গড়ে ১০.৮ শতাংশ।