ফিস দেওয়ার সামর্থ্য নেই? চিন্তা নেই, নারকেল দিলেই হবে

ফিস দেওয়ার সামর্থ্য নেই? চিন্তা নেই, নারকেল দিলেই হবে

আজ বাংলা: স্কুল-কলেজে পড়াশোনা করতে গেলে ফিস মেটাতেই হয়। তবে অনেক সময় সবার কাছে সময়মতো ফিস মেটানোর টাকা থাকে না। তবে এর চিন্তা নয়। 
 এই নিয়মে বড় সড় বদল আনল এক কলেজ। 

ঘটনাস্থল ইন্দোনেশিয়া। এখানকার এই কলেজ জানিয়েছে টাকার বদলে এবার নারকেল দিয়েও মেটানো যাবে ফিস। তবে নেহাত মজা করে নয়, এই সিদ্ধান্তের পিছনে রয়েছে এক বড় সড় মানবিক কারন।

জানা গিয়েছে, ইন্দোনেশিয়ার বালির দ্য ভেনাস ওয়ান ট্যুরিজম অ্যাকাডেমি নামের কলেজটি সম্প্রতি তার শিক্ষার্থীদের জন্য এনেছে এই ব্যাবস্থা। কলেজটিতে ট্যুরিজম পড়ানো হয়ে থাকে। কিন্তু কেন এমন ব্যাবস্থা? কলেজ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে লকডাউনে অনেক শিক্ষার্থীর পরিবারের আর্থিক অবস্থা ভালো নয়। অনেকেই জমা করতে পারেন নি কলেজের ফিস। তাদের কাছে শিক্ষায় যাতে অর্থ বাধা হয়ে না দাঁড়ায় তাই এই ব্যবস্থা।


তবে স্বাভাবিকভাবে প্রশ্ন উঠছে, এই নারকেল দিয়ে কী করবে কলেজ কর্তৃপক্ষ? কলেজের এক আধিকারিক আয়ান পাসেক আদি পুত্রা জানিয়েছেন, কলেজ নারকেল তেল তৈরি করে। ছাত্রদের ফিস হিসাবে দেওয়া নারকেল থেকে তেল তৈরি করবে কর্তৃপক্ষ। প্রশান্ত মহাসাগর অঞ্চলে ইন্দোনেশিয়া একটি দ্বীপ রাষ্ট্র। অন্যান্য দ্বীপ রাষ্ট্রের মতই ইন্দোনেশিয়াতেও প্রচুর নারকেল উৎপাদিত হয়। 

নারকেল এখানে একটি অর্থকরী ফসলও। নারকেল ও নারকেলজাত পন্য তৈরি ও রপ্তানি করে দেশটি প্রচুর আয় করে।