ঘামাচি থেকে মুক্তি পান খুব সহজেই

ঘামাচি থেকে মুক্তি পান খুব সহজেই

আজবাংলা-  ক্রমশ গরম বাড়ছে। প্রচন্ড গরমের শরীরে এমনিতেই অস্থির অবস্থা হয়ে যায়। এর উপর যদি শরীরে ঘামাচি হয় তাহলে ভোগান্তি আরও কয়েকগুণ বেড়ে যায়। উষ্ণ-আর্দ্র আবহাওয়ায় ঘামাচি, র‌্যাশ, চুলকানির সমস্যা তো হবেই। যা খুব অস্বস্তিদায়ক আর বিরক্তিকর। এখন ঘামাচির হাত থেকে মুক্তি পান খুব সহজেই।

১. প্রচুর পরিমাণে জল খান। ঘাম কম হবে। হালকা রঙের পোশাক পরুন। তা যেন হয় ঢিলে-ঢালা। বেশি গাঢ় রঙের জামাকাপড় পরবেন না। ২. ট্যালকম পাউডার ব্যবহার না করাই ভালো। এতে লোমকূপের মুখ আরও বন্ধ হয়ে যায়। হিতে বিপরীত হতে পারে। খাবারে প্রচুর পরিমাণে ফল আর শাক-সবজি রাখুন।

৩. স্নানের জলে কোনো অ্যান্টি-সেপটিক ব্যবহার করুন। এছাড়াও স্নানের জলে লেবুর রস, নিম পাতার রস মিশিয়ে নিতে পারেন। এতে ত্বক ফ্রেশ থাকবে এবং জীবাণু কম হবে। ৪. অ্যালোভেরার রস, নিম পাতার রস, পাতিলেবুর রস জলে মিশিয়ে পাতলা করে নিয়ে লাগান।

৫.গরমে চেষ্টা করুন কিছুক্ষণ পর পর ঘাম মুছে নিতে। ঘাম মোছার সময় অতিরিক্ত চাপ দিবেন না। শক্ত কিছু ব্যবহারও করবেন না। পরিস্কার সুতির রুমাল ব্যবহার করুন। প্রয়োজনে সঙ্গে অতিরিক্ত রুমাল রাখুন। রুমালে বরফের টুকরো মুড়ে নিয়ে মুখে ঘষুন। গরমের জ্বালা থেকে আরাম পাবেন।

৬. ঘামাচি থেকে যে চুলকানি হয়, সেটা কমাতে পারে বেকিং সোডা বা সোডিয়াম বাই কার্বনেট। স্নানের জলে ২ থেকে ৩ চামচ সোডা মিশিয়ে নিন। ঘামাচি কমে যাবে।

৭.সম্ভব হলে দিনে দুই বার স্নান করুন। কম ক্ষারযুক্ত সাবান ব্যবহার করুন। ঘামাচির স্থানে সাবান ঘষবেন না। শরীরে অন্য স্থানেও হালকা হাতে সাবান ব্যবহার করুন।