এ যেন নুতন এক বিদ্যাসাগর, রাস্তায় বসে লেখাপড়া করছে মেয়েটি

এ যেন নুতন এক বিদ্যাসাগর, রাস্তায় বসে লেখাপড়া করছে মেয়েটি

আজবাংলা  আমাদের আশেপাশে এমন কত মানুষই না আছে, যারা কত কষ্ট করে লেখাপড়া করেন। তাঁদের কথা আমরা জানতেও পারি না। মাঝে মধ্যে উঠে আসে এমন কেউ কেউ। তখন জানতে পারি কেউ কুলি মজুরি করে লেখাপড়া করছে, কেউ জুতো সেলাই করে লেখাপড়া করছে আবার কেউ কেউ একেবারে সংসারের জন্য দুমুঠো খাবারের বন্দোবস্ত করে, তারপর লেখাপড়া করছে।

সম্প্রতি এমনই এক ছবি ভাইরাল হল সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে ছবিটিতে দেখা গিয়েছে, রাস্তার এক প্রান্তে বসে রয়েছে এক মহিলা আর এক অল্প বয়সী মেয়ে। তাঁদের সামনে রাখা রয়েছে একটি দেহের ওজন মাপার যন্ত্র। পাশে একটি বিজ্ঞাপনের মতন রয়েছে।

তাতে লেখা আছে, 'ওজন মাপা হয়। আপনি ইচ্ছে মতো পয়সা দিতে পারেন। আমি আপনার থেকে অল্প সাহায্য প্রার্থনা করছি।’ তবে এটি কিন্তু মূল বিষয় নয়। এগুলির বাদ দিয়ে আপনার মন ঘুরে যাবে অন্যদিকে।

কারন তখন যে এক অল্প বয়সী মেয়েটির কথা বলেছিলাম, এখানে সেই সমস্ত মনোযোগ আপনার টেনে নেবে।  তাঁর কারন সেই মেয়েটি তাঁর মায়ের পাশে বসে একমনে লেখাপড়া করে যাচ্ছে।

রাস্তার ধারে তাঁর মা কোনরকমে চেষ্টা করে যাচ্ছেন সংসারের লড়াইটা চালানোর, আর অপরদিকে তাঁর মেয়ে বই খুলে পড়ে ভবিষ্যতে নিজের পায়ে দাঁড়ানোর লড়াই চালাচ্ছে। এইসব কারনের জন্যই এই ছবিটি নেতিজেনদের কাছে আলাদা জায়গা করে নিয়েছে।

ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ার পোস্ট করা হয়েছে ১৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার। এই বিশেষ ছবিটি পোস্ট করেছেন, অবনীশ সরণ নামে ২০০৯ সালের ছত্তীসগঢ় ব্যাচের এক আইএএস অফিসার। কোথায় তোলা হয়েছে ছবিটি, সে বিষয়ে কিছুই উল্লেখ করেননি তিনি।

এখনো অবধি ছ’ হাজারের বেশি লাইক এসেছে ওই ছবির পোস্টটিতে। নীচে ছবির লিঙ্কটি দেওয়া হল।

https://twitter.com/AwanishSharan/status/1306433866639441921