সাফল্যের রহস্য ফাঁস করলেন হার্দিক পাণ্ড্য

সাফল্যের রহস্য ফাঁস করলেন হার্দিক পাণ্ড্য

ম্যাঞ্চেস্টারে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে চার উইকেট তুলে নেন হার্দিক পাণ্ড্য। বল করতে এসে জুটি ভাঙার কাজ নিপুণ ভাবেই করলেন তিনি। ফিরিয়ে দিলেন জেসন রয়, বেন স্টোকস, জস বাটলারদের মতো ব্যাটারদের। নজর কেড়েছে তাঁর কৃপণ বোলিংও।  সাত ওভার বল করে ২৪ রান দিয়ে চার উইকেট নেন হার্দিক। এর আগে এক দিনের ক্রিকেটে তিন উইকেট নিলেও চার উইকেট পেলেন প্রথম বার।

ইংল্যান্ডকে ২৫৯ রানে থামিয়ে ভারতের অলরাউন্ডার বলেন, “পরিকল্পনায় কিছু বদল করতে হয়েছে। এটা এমন উইকেট যেখানে ফুল লেংথে বল করে উইকেট আসবে না। শর্ট বল করতেই হবে। বাউন্সার দিতে আমি পছন্দ করি। এক দিনের ক্রিকেটে শর্ট বল করতেই হবে। উইকেট নেওয়ার সুযোগ তৈরি হবে তাতে। (লিয়াম) লিভিংস্টোন পছন্দ করে শর্ট বলে আক্রমণ করতে।

ও আমাকে দুটো ছক্কা মারে। কিন্তু অধিনায়ককে আমি বলি যে চারটে ছয় মারলেও শর্ট বল করব, তাতে উইকেট পেলে খেলাটাই পাল্টে যাবে।” বেশ কিছু সময় চোটের জন্য খেলতে পারেননি হার্দিক। আইপিএলে অলরাউন্ডার হিসাবে ফিরে আসেন তিনি। ভারতীয় দলেও প্রত্যাবর্তন ঘটে তাঁর। আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে দেশকে নেতৃত্বও দেন হার্দিক।

সেই চোট সম্পর্কে হার্দিক বলেন, “আমার শরীর এখন ঠিক আছে। বল করতে কোনও অসুবিধা হয় না। অধিনায়ক জানে কখন আমাকে বল করাতে হবে, কখন নয়। আমার কোনও অসুবিধা হচ্ছে না বল করতে।”  হার্দিক ছাড়াও উইকেট পেয়েছেন যুজবেন্দ্র চহাল। তিন উইকেট নেন তিনি। মহম্মদ সিরাজ নিয়েছেন দু’টি উইকেট। একটি উইকেট নেন রবীন্দ্র জাডেজা।