শিশুদের এই অভ্যাসের দিকে নজর না দিলে সমস্যায় পড়বে অভিভাবকরাই, জানায় চাণক্য নীতি

শিশুদের এই অভ্যাসের দিকে নজর না দিলে সমস্যায় পড়বে অভিভাবকরাই, জানায় চাণক্য নীতি

আজবাংলা    চাণক্য সম্পর্কে সকলেই জানেন যে তিনি একজন যোগ্য শিক্ষক ছিলেন। চাণক্য বিশ্বখ্যাত তক্ষশিলা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের শিক্ষা দিতেন। বিশেষ কথাটি হ'ল চাণক্য নিজেই এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র এবং পরে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক হয়েছিলেন। চাণক্য তাঁর নীতিতে বাচ্চাদের পড়াশোনা ও আচার সম্পর্কে বলেছিলেন।

চাণক্যের মতে শিশুদের প্রথম শিক্ষক হলেন মা এবং পিতা। অতএব, পিতামাতাদের তাদের সন্তানের পড়াশোনা সম্পর্কে খুব সচেতন হওয়া উচিত।চাণক্য নিজের মধ্যে একজন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ছিলেন, তাই তিনি শিক্ষার গুরুত্ব ভালভাবেই জানতেন এবং বুঝতে পেরেছিলেন। চাণক্য বিশ্বাস করেছিলেন যে ভাল মূল্যবোধের শিক্ষিত ব্যক্তি জীবনে সাফল্য পান। 

চাণক্যের মতে, বাচ্চারা যখন ছোট হয়, তখন তাদের নজরদারি করা উচিত, কারণ শিশুরা যখন ছোট হয়, তখন তারা অনেকগুলি ভুল অভ্যাসের প্রতি আকৃষ্ট হয়, এজন্য পিতামাতাকে সঠিকভাবে সন্তানের পালন করা উচিত।

চাণক্যের মতে, বাচ্চাদের মিথ্যা কথা বলা অভ্যাসটি একটি ভুল অভ্যাস এটি শেখানোনো উচিত। যদিও শিশুদের মধ্যে মিথ্যে কথা বলার অভ্যাসটি বৃদ্ধি পায় তবে এটি গুরুত্ব সহকারে দেখা উচিত। বাচ্চাদের ভালোবাসার সঙ্গে বোঝানো উচিত সত্যের গুরুত্ব সম্পর্কে জানানো উচিত।

মিথ্যা বলার প্রবণতা শিশুদের ভুল পথে নিয়ে যায়, তাই এই ভুল অভ্যাসটি যথাসময়ে সরানো উচিত। চাণক্যের মতে , মহাপুরুষদের সম্পর্কে সব সময় বাচ্চাদের জানানো উচিত। কারণ বাচ্চারা তাদের চারপাশের ক্রিয়াকলাপগুলিকে খুব দ্রুত সংযুক্ত করে। শিশুদের ভুল অভ্যাস থেকে দূরে সরাতে তাদের উচিত মহান পুরুষদের সম্পর্কে তাদের জানানো এবং তাদের জীবনী থেকে অনুপ্রাণিত করা।

চাণক্যের মতে বাচ্চারা যখন বিশ্বাস করা বন্ধ করে দেয়,তখন তারা ঠিক এবং ভুল এর বিষয়ে জ্ঞান থাকে না। এ জাতীয় পরিস্থিতিতে বাচ্চাদের মধ্যে বিকাশ হওয়া ভুল অভ্যাসগুলি দূর করার জন্য ধৈর্য সহকারে চেষ্টা করা উচিত।

অনেক সময় বাচ্চারা বড়দের কথা শোনা বন্ধ করে দেয় এবং নিজের মনের মত জিনিস করা শুরু করে, যা তারা বেশি পছন্দ করে। এ জাতীয় পরিস্থিতিতে বাবা-মাকে সতর্ক হওয়া উচিত এবং কোনও অভয় না দিয়ে এই অভ্যাস থেকে মুক্তি পাওয়ার চেষ্টা করা উচিত।