ভারতের বাজারে এল Tiktok ও Shareit - এর নতুন বিকল্প অ্যাপ

ভারতের বাজারে এল Tiktok ও Shareit - এর নতুন বিকল্প অ্যাপ

আজবাংলা   ভারত-চীন সংঘাতের পর থেকেই জুন মাসে থেকে ভারত সরকার এই তিনটি অ্যাপ Shareit , Xender ও Tiktok নিষিদ্ধ করেছে। এছাড়া ওই তিনটি অ্যাপ ছাড়াও আরও বেশ কিছু অ্যাপ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। সিনেমা, ছবি ও বড় কোন ফাইল এক মোবাইল থেকে আর এক মোবাইলে পাঠানোর জন্য ওই Xender বা Shareit ব্যবহার করা হত। এছাড়া ভিডিও শুট করে তার সাথে গান ও কোন কিছুর ডায়লগ জুড়ে একধরনের ভিডিও বানানো হত। এই অ্যাপ গুলি ব্যান হওয়ার পর থেকেই সবাই এর বিকল্প অ্যাপ খুঁজছে।

এরপর গুগল নিয়ে এলো অ্যান্ড্রয়েড গ্রাহকদের জন্য এক বিশেষ অ্যাপ। গুগলের Nearby Share অ্যাপ। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই সব ফাইল শেয়ার করা যাবে এই নিয়ারবাই শেয়ার অ্যাপের দ্বারা। গুগলের এই অ্যাপ টি অনেকটা অ্যাপলের 'AirDrop'-এর মতো কাজ করবে। ফোনের ব্লুটুথ, BLE, WebRTC বা Wi-Fi ব্যবহার করে খুব তাড়াতাড়ি ফাইল ট্রান্সফার করে থাকে। এটি অ্যান্ড্রয়েড ৬.০ এবং এর থেকে ওপরের অপারেটিং সিস্টেমে চলবে। এটি এখন থেকে গুগল পিক্সেল ও স্যামসাং স্মার্টফোন বাবহারকারীরা এই ফিচারটি ব্যবহার করতে পারবেন।

এরপর টিকটকের বিকল্পের জন্য ইনস্টাগ্রাম নিয়ে এলো এল এক নতুন ফিচার, ইনস্টাগ্রাম রিলস। এটি একেবারে টিকটকের মতনই। এই ফিচারটি পাওয়া যাবে ইনস্টাগ্রাম স্টোরিজের মধ্যে। এই অ্যাপটির মধ্যেই নানান ধরনের গান এবং ফিল্টারের সুবিধা আছে। ১৫ সেকেন্ডের ভিডিও শ্যুট করে, তার সঙ্গে মিউজিক দিয়ে ও আরও নানা ভাবে এডিট করে একেবারে নিউজ ফিডে পোস্ট করা যাবে। এছাড়া আরও নানা ভাবে ভিডিও এডিট করার সুবিধা আছে। আগের বছর থেকেই ফ্রান্স, জার্মানিতে ও ব্রাজিলে ইনস্টাগ্রাম রিলের ব্যবহার শুরু হয়ে গেছে। গত  বুধবার থেকেই ভারতে ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীরা এই নতুন ফিচার ব্যবহার করার সুযোগ পাচ্ছেন।