পাকিস্তানে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে গ্রেফতার নির্দোষ হিন্দু যুবক

পাকিস্তানে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে গ্রেফতার নির্দোষ হিন্দু যুবক

পাকিস্তানে সংখ্যালঘু নিপীড়নের অভিযোগ অব্যাহত। এ বার সিন্ধু প্রদেশের হায়দরাবাদ শহরে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে এক হতদরিদ্র হিন্দু পরিবারের যুবককে গ্রেফতার করা হল। যদিও স্থানীয় হিন্দু জনগোষ্ঠীর দাবি, ওই যুবক নির্দোষ। কট্টরপন্থী সংগঠন ‘তেহরিক-ই-লব্বাইক’ (টিএলপি)-এর নেতা-কর্মীদের হুমকির জেরেই অশোক কুমার নামে ওই যুবককে গ্রেফতার করা হয় বলে অভিযোগ।

হায়দরাবাদ পুলিশ জানিয়েছে, ধৃতের বিরুদ্ধে ধর্মদ্রোহ আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত চলছে। রবিবার হায়দরাবাদের হিন্দু মহল্লায় অশোকের বাড়ির সামনে বিক্ষোভ দেখান টিএলপি সদস্যেরা। ঘটনার জেরে এলাকায় উত্তেজনা তৈরি হয়।  সিন্ধু প্রদেশের হিন্দু জনগোষ্ঠীর নেতা রবি দাওয়ানি জানিয়েছেন, পেশায় সাফাইকর্মী অশোক রাস্তায় জমা আবজর্না সাফ করে পোড়াচ্ছিলেন।

সে সময় স্থানীয় কয়েক জন অভিযোগ করেন, ওই আবর্জনার সঙ্গে ধর্মীয় পুস্তকের কয়েকটি পাতা রয়েছে। আর তার পরেই উত্তেজনা তৈরি হয়। প্রসঙ্গত, গত কয়েক বছরে একাধিক বার সংখ্যালঘুদের বিরুদ্ধে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে অশান্তি বাধিয়েছে টিএলপি। ২০২১-এ ধর্ম অবমাননার অভিযোগে শিয়ালকোটের একটি কারখানার ম্যানেজারকে খুন করার অভিযোগ উঠেছিল পাক কট্টরপন্থী গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে। ম্যানেজার ছিলেন শ্রীলঙ্কার নাগরিক।