গ্রিন সিগনাল রাজ্যের, ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে চালু হতে চলেছে লোকাল ট্রেনে

গ্রিন সিগনাল রাজ্যের, ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে   চালু হতে চলেছে  লোকাল ট্রেনে

  বন্ধ হয়েছিল লোকাল ট্রেন চলাচল। পরে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে এলে স্টাফ স্পেশাল চলাচলে ছাড় দেয় রাজ্য। চরম হয়রানির শিকার হচ্ছিলেন নিত্যযাত্রীরা। এবার সেই কষ্ট অবসানের পথে। পশ্চিমবঙ্গে লোকাল ট্রেন চলাচলে ছাড় ঘোষণা করল নবান্ন। ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে কোভিড বিধি মেনে চলবে লোকাল ট্রেন। আগামী ১লা নভেম্বর থেকে রাজ্যে লোকাল ট্রেন চলাচল শুরু হতে পারে।

এমনটাই জানিয়েছেন পূর্বরেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক একলব্য চক্রবর্তী। তবে, কীভাবে ৫০ শতাংশের যাত্রী নিয়ন্ত্রণের বিষয়টি কার্যকর করা হবে তা নিয়েই আলোচনা চলছে বলে জানিয়েছেন একলব্যবাবু। তাঁর কথায়, 'রেল প্রস্তুত। রেলের তরফে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ থাকবে। জনসাধারণকেও বুঝতে হবে সকলে এক ট্রেনে উঠতে পারবেন না। ট্রেনে ভিড় হলে পরবর্তী ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করে যাওয়াই ভালো হবে।

এতে সংক্রমণ বৃদ্ধিরও সম্ভাবনা থাকবে না।'  ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত রাজ্যে কোভিড নিয়ন্ত্রণবিধি জারি রয়েছে। শুক্রবার নবান্নের তরফে বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানানো হয়েছে যে, ওই নিয়ন্ত্রণ রাজ্যব্যাপী আরও একমাস বৃদ্ধি করা হচ্ছে। তবে এবার প্রভূত ছাড় দেওয়া হয়েছে। করোনা রুখতে মুখে মাস্ক পড়া ও দূরত্ববিধি বজায় রাখার বিষয়টি বাধ্যতামূলক বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে। করোনাবিধি মেনে সিনেমা, সিরিয়ালের আউটডোর শ্যটিংয়েও ছাড় দেওযা হয়েছে।

সিনেমা, সিরিয়ালের ইন্ডোর শ্যটিংয়ে ৭০ শতাংশ হাজির থেকে কাজ করতে পারবেন।বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে, ৭০ শতাংশ দর্শক নিয়ে সিনেমা হল, থিয়েটার হল, সদন, শপিং মল, বাজার, রেস্তোরাঁ, বার, স্পা, জিম খুলতে পারে। রাত ১১টা পর্যন্ত খোলা থাকতে পারে এগুলি। আগে এসবে ৫০ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় ছিল। এবার তা বেড়ে হল ৭০ শতাংশ। ৭০ শতাংশ লোক নিয়ে বিয়ে বাড়িতেও অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

স্কুল, কলেজ খুলছে আগামী ১৬ নভেম্বর থেকে। এবার কোচিং সেন্টারগুলিও খুলবে। ৭০ শতাংশ পড়ুয়া নিয়ে চালু হতে পারে কোচিং সেন্টারের পঠন-পাঠন। দুর্গাপুজোর সময় রাজ্যে রাত্রীকালীন কার্ফু প্রত্যাহার করা হয়েছিল। কিন্তু, পুজো মিটতেই ফের তা কার্যকর হয়। চলে পুলিশি নাকাচেকিং। এ দিন নবান্নের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে, কালীপুজোর সময় ফের উঠবে রাত্রীকালীন নিয়ন্ত্রণ। ২-৫ নভেম্বর নৈশ কার্ফু কার্যকর হবে না। এছাড়া ছটপুজো উপলক্ষে আগামী ১০-১১ নভেম্বরও একই ব্যবস্থা বলবত্‍ হবে।