ফের দমদম স্টেশনে থেকে উদ্ধার হল প্রচুর সোনার গয়না

ফের দমদম  স্টেশনে থেকে উদ্ধার হল প্রচুর সোনার গয়না

ফের দমদম (DumDum) স্টেশনে থেকে উদ্ধার হল প্রচুর সোনার গয়না। গয়নার নিয়ে যাওয়ার পথে আটক করা হল এক ব্যক্তিকে। কোথা থেকে এল এই সোনার গয়না, কোথায় কার কাছে পাঠানো হচ্ছিল, তা জানতে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। এদিকে এক মাসের মধ্যে দু'বার একই স্টেশন থেকে প্রচুর সোনা উদ্ধারে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। তবে কি এবার ট্রেনের পর মেট্রোর (Kolkata Metro) মাধ্যমে সোনা পাচার হচ্ছে শহরে, উঠছে প্রশ্ন।

বিবৃতি দিয়ে মেট্রো জানিয়েছে, মঙ্গলবার বিকেল ৪টে নাগাদ দমদম স্টেশনে যাত্রীদের ব্যাগ স্ক্যান করা হচ্ছিল। তখনই বিষয়টা ধরা পড়ে। দেখা যায়, ব্যাগে ধাতব সামগ্রী বহন করছেন ওই ব্যক্তি। ব্যাগ পরীক্ষা করতেই প্রচুর সোনার গয়না (Gold Ornamenys) উদ্ধার হয়। মেট্রো সূত্রে খবর, প্রায় ৩৪৫ গ্রাম গয়না উদ্ধার হয়। যার বাজার মূল্য ১৫ লক্ষ ৬৫ হাজার টাকা।  ধৃত ব্যক্তির নাম বাবলু গড়ুই। হুগলির বাসিন্দা।

সোনার গয়নাগুলি কোথা থেকে তিনি কিনেছিলেন, কার কাছে পাঠাচ্ছিলেন, সেই সংক্রান্ত কোনওরকম নথিই প্রকাশ করতে পারেননি তিনি। এর পর সিঁথি থানার পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। তাঁরা এসে ধৃত বাবলুকে নিজেদের হেফাজতে নেন। অভিযোগ দায়ের করে শুরু হয়েছে তদন্ত। উল্লেখ্য,পাতালপথে সোনা পাচারের চেষ্টা অবশ্য নতুন নয়। গত এপ্রিল মাসে সেখান থেকে প্রায় ২৫ লক্ষ টাকার সোনার গয়না উদ্ধার হয়।

এর পর ২ সেপ্টেম্বরও দমদম স্টেশন থেকে বিপুল পরিমাণ সোনার গয়না উদ্ধার হয়। সেদিন দুপুর ২ টো ৪০ মিনিট নাগাদ দমদম মেট্রো স্টেশনে যান এক যুবক। তার বয়স ৩৭ বছর। জানা গিয়েছে, ওই যুবকের আচরণেই সন্দেহ হয় মেট্রো স্টেশনে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশ কর্মীদের।

তল্লাশি চালাতেই উদ্ধার হয় প্রচুর সোনার গয়না। একের পর এক এধরনের ঘটনা ঘটায় চিন্তায় মেট্রোর আধিকারিকরা। এতদিন রেলের মাধ্যমে সোনা পাচার হতে দেখা গিয়েছে। এবার কি তবে কলকাতার লাইফলাইন মেট্রোকেই সোনা পাচারের রুট বানাচ্ছে পাচারকারীরা? উঠছে প্রশ্ন।