চায়ে পে চর্চা নদীয়ার ফুলিয়াতে উপস্থিত মন্ত্রী সঞ্জীব কুমার বলিয়ান

চায়ে পে চর্চা নদীয়ার ফুলিয়াতে উপস্থিত  মন্ত্রী সঞ্জীব কুমার বলিয়ান

 ফুলিয়া :- ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে বিজেপি বাদেও বিভিন্ন দলের সরকার চলে! কিন্তু বিভিন্ন পেশার সঙ্গে যুক্ত থাকা প্রান্তিক মানুষদের কেন্দ্রীয় সরকারের সহযোগিতা থেকে বঞ্চিত রাখে না কোনো সরকার!

পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতির কারণেই মোদি সরকারের আশীর্বাদ পৌঁছাতে দেয়না বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। আজ নদীয়ার ফুলিয়ায় এভাবেই কড়া ভাষায় নিন্দা করলেন পার্লামেন্ট সদস্য, উত্তর প্রদেশ রাজ্যের মন্ত্রী সঞ্জীব বলিয়ান।


গতকাল নদীয়ার নবদ্বীপে এক সভা করার পর, আজ সকাল সকাল পৌঁছে গেছেন নদীয়ার ফুলিয়ায়  এক চা চর্চায়। উপস্থিত ছিলেন রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ জগন্নাথ সরকার সহ স্থানীয় বিজেপি নেত্রীবৃন্দ।

 নদীয়া জেলায় একের পর এক হেভিওয়েট বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতা মন্ত্রীদের আগমনে রাজনীতির পারদ চড়েছে, প্রবল শীতের মধ্যেও। সংসদ জগন্নাথ বাবু জানান, পশ্চিমবঙ্গে সাধারন মানুষ নতুন সরকার গঠন করে ফেলেছেন ইতিমধ্যেই, আনুষ্ঠানিকভাবে জানা যাবে কিছুদিন বাদে বিধানসভা ভোটে।

মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে সৌরভ গাঙ্গুলী প্রসঙ্গে সঞ্জীব বলিয়ান সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে জানান বাঙালি মুখ্যমন্ত্রী অবশ্যই! তবে সৌরভ গাঙ্গুলী কিনা সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন দলের হাইকমান্ড।