মোদী-বাইডেন প্রথম সাক্ষাত্‍ শুক্রবার

মোদী-বাইডেন প্রথম সাক্ষাত্‍ শুক্রবার

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে চলতি সপ্তাহে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে বসবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ওয়াশিংটনে চতুর্দেশীয় অক্ষ বা 'কোয়াড' গোষ্ঠীভুক্ত দেশগুলির বৈঠক হবে। তাতে যোগ দিতে আমেরিকায় সফরের কর্মসূচি রয়েছে মোদীর। সব ঠিক থাকলে সে সময় প্রথম বার মুখোমুখি হবেন দুই রাষ্ট্রনেতা।

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের জানুয়ারিতে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট পদে আসীন হওয়ার পর বাইডেন এই প্রথম মোদীর সঙ্গে মুখোমুখি বৈঠক করবেন। এর আগে একাধিক ভার্চুয়াল বৈঠকে মিলিত হয়েছেন এই দুই রাষ্ট্রপ্রধান। চলতি বছরের মার্চে 'কোয়াড' গোষ্ঠীভুক্ত দেশগুলির প্রথম বৈঠক, এপ্রিলে জলবায়ু সম্মেলন বা জুনে জি-৭ গোষ্ঠীভুক্ত দেশের সম্মেলনেও দুই নেতার ভার্চুয়াল বৈঠক হয়েছে।

বস্তুত, বাইডেন ক্ষমতায় আসার পর এই প্রথম আমেরিকা সফর মোদীর। ২০১৯ সালে বাইডেনের পূর্বসূরি ডোনাল্ড ট্রাম্পের আমলে 'হাউডি মোদী' অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আমেরিকার হিউস্টনে গিয়েছিলেন তিনি। তবে আগামী ২৪ সেপ্টেম্বর ওয়াশিংটনে 'কোয়াড' গোষ্ঠীভুক্ত দেশগুলির বৈঠকের আয়োজন করেছেন বাইডেন। তাতেই সরাসরি দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় বসবেন মোদী-বাইডেন। বাইডেনের সঙ্গে বৈঠকে আফগানিস্তান সহ অন্যান্য প্রসঙ্গ উঠে আসার সম্ভাবনা রয়েছে।

এছাড়াও সম্ভাবনা রয়েছে পাকিস্তান এবং কোভিড প্রসঙ্গেও আলোচনা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ভারত মনে করছে আমেরিকা এবং ভারত দুই দেশই চায়না আফগানিস্তান সন্ত্রাসবাদের আঁতুড়ঘরে পরিণত হোক। এছাড়াও আফগানিস্তানের মাটিতে পাকিস্তানের সাম্প্রতিক কার্যকলাপের পরে ভারতে অনুমান উপমহাদেশীয় অঞ্চলে পাকিস্তানের উপস্থিতি এবং তার ফলে উদ্ভূত বিভিন্ন সমস্যা সম্পর্কে আমেরিকা আরোও মনোনিবেশ করবে।

চীনের সঙ্গে পাকিস্তানের সখ্য বৃদ্ধি এবং পাক অধিকৃত কাশ্মীরের উপর দিয়ে রাস্তা তৈরির বিষয়ে আলোচনা হবার সম্ভাবনা রয়েছে। এরই সঙ্গে কোভিড বিষয়ে গবেষণা এবং টিকা ও ওষুধ তৈরির কাঁচামালের বিষয়ে কথা বলার সম্ভাবনা রয়েছে। এই বৈঠকে ভারত কিভাবে কোভিডের দ্বিতীয় ঢেউ সামলেছে সেই ব্যাপারেও মোদী জানাতে পারেন বাইডেনকে।