Bangla News| কাশীপুরে বিজেপি যুব নেতার রহস্যমৃত্যু, ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার

Bangla News| কাশীপুরে বিজেপি যুব নেতার রহস্যমৃত্যু, ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার

কাশীপুরে বিজেপি যুব মোর্চা নেতা অর্জুন চৌরাসিয়ার রহস্যমৃত্যু ঘিরে উত্তেজনা। রেল কোয়ার্টারের একটি পরিত্যক্ত ঘর থেকে উদ্ধার ঝুলন্ত মৃতদেহ। ঘটনার কথা শুনেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। উত্তর কলকাতা জেলা বিজেপির সভাপতি কল্যাণ চৌবে জানিয়েছেন, উত্তরবঙ্গ থেকে কলকাতা বিমানবন্দরে নেমে অমিত সোজা কাশীপুরে অর্জুনের বাড়িতে যাবেন।

বিজেপি সূত্রে খবর, অর্জুন কলকাতা পুরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডে দলের কাজকর্ম দেখাশোনা করতেন। গেরুয়া শিবিরের দাবি, বৃহস্পতিবার রাতে ২০০ বাইকের একটি র‌্যালির আয়োজন নিয়ে ব্যস্ত ছিলেন তিনি। সেই বাইক র‌্যালি নিয়ে কলকাতা বিমানবন্দরে অমিত শাহকে অভ্যর্থনা জানাতে যাওয়ার কথা ছিল অর্জুনের। কিন্তু শুক্রবার সকালে তাঁর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হয়।

 পুলিশ সূত্রে দাবি, ঘরে কোনও সুইসাইড নোট মেলেনি। পরিবারের দাবি, ওই যুবক বিজেপি কর্মী ছিলেন। পরিবার এই ঘটনায় খুনের অভিযোগ করেছে। চিত্‍পুর থানার পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে। পরিবারের অভিযোগ, বিধানসভা নির্বাচনের পর হুমকি দেওয়া হয় বিজেপি যুব মোর্চার ওই নেতাকে। পরিবার আরও জানায় যে গতকাল রাত সাড়ে ৮টায় সে অফিস থেকে বাড়ি ফেরে।

উত্তর কলকাতা জেলা বিজেপির সভাপতি কল্যাণ চৌবে বলেন, ‘‘গত কাল থেকেই অর্জুন মিসিং ছিল। রাতেই থানায় যাওয়া হয়েছিল। সকালে এই কাণ্ড।’’ মৃতের পরিবারের অভিযোগ, রাতে থানায় গিয়ে অর্জুনের নিখোঁজ হওয়ার কথা জানালেও গা করেনি পুলিশ। শুক্রবার সকালে মৃতদেহ উদ্ধার করতে গিয়ে বিক্ষোভের মুখে পড়ে চিৎপুর থানার পুলিশ।

পরিবারের অভিযোগ, বিধানসভা ভোটের সময় থেকেই তৃণমূল হুমকি দিচ্ছিল অর্জুনকে। তৃণমূলের দুষ্কৃতীরাই অর্জুনকে খুন করে ঝুলিয়ে দিয়ে গিয়েছে। বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী সুভাষ সরকার এই মৃত্যুর ঘটনার সিবিআই তদন্তের দাবি জানিয়েছেন। একই দাবি করেছে পরিবারও।এই মুহূর্তে ঘটনাস্থলে পরিজনেরা বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন। তাদের দাবি, দেহ কোনওভাবে বের করা যাবে না, যতক্ষণ না সম্পূর্ণ তদন্ত হচ্ছে।