বিহারে লালুর শাসনকালীন মানুষেরা বাড়ি থেকে বেরোতে ভয় পেত, জানালেন নীতিশ কুমার

বিহারে লালুর শাসনকালীন মানুষেরা বাড়ি থেকে বেরোতে ভয় পেত, জানালেন নীতিশ কুমার
People lived in fear during Lalu-Rabri govt in Bihar, says Nitish Kumar

আজ বাংলা      বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার রাজ্যে আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের আলোচ্যসূচি স্থির করেছেন। এটা স্পষ্ট যে নির্বাচনী প্রচারের সময় তাঁর দৃষ্টিভঙ্গি নীতীশের ১৫ বছর রাজ্য শাসন রাজ্য শাসন বনাম লালু-রাবরির ১৫ বছরের জালিয়াতির সাথে তুলনা করা হয়েছে। ভার্চুয়াল "কার্যকার্তা সম্মেলন" এর মাধ্যমে প্রতিদিন তাঁর দলীয় কর্মীদের সাথে মতবিনিময় নীতীশ রাজ্যের জনগণকে স্বামী-স্ত্রী যুগলের ১৫ বছরের জালিয়াতির ও দুর্নীতির শাসন মনে করিয়ে দিলেন।

"স্বামী-স্ত্রীর ১৫ বছরের শাসনামলে পরিস্থিতিটি কতটা খারাপ ছিল  লোকেরা সেটা জানতো। মানুষ ঘর থেকে বেরোনোর পর ভয় পেত l বহু সাম্প্রদায়িক অধিকার এবং বর্ণহত্যার ঘটনা ঘটেছে এই ১৫ বছরের মধ্যে। রাজ্যে অপরাধের গ্রাফ ব্যাপক আকারে বেড়েছে, বললেন  বুধবার কার্যকার সম্মেলন চলাকালীন নীতীশ কুমার। বিহারের মুখ্যমন্ত্রী প্রথমবারের ভোটারদের কাছে পৌঁছানোর এবং যাদব দম্পতির ১৫ বছরের শাসন সম্পর্কে তাদের অবহিত করার জন্য দলীয় কর্মীদের উপর জোর দিয়েছিলেন।

"২০০০ সালের পরে যে তরুণ প্রজন্ম জন্মগ্রহণ করেছে তারা  ১৯৯০ থেকে ২০০৫ সালের মধ্যে বিহারের পরিস্থিতি সম্পর্কে অবগত নয় কিন্তু  তাদেরকেও এ সম্পর্কে জানানো  উচিত। লোকেরা পুরানো জিনিস ভুলে যায় তবে আমাদের তা নিশ্চিত করতে হবে যে  এই ভুল আবার যেন  না হয়", বললেন  বিহারের মুখ্যমন্ত্রী। 

নির্বাচনের আগে ১৯৯০-২০০৫ সালের মধ্যে বিহারের অনাচার সম্পর্কে জনগণকে স্মরণ করিয়ে দেওয়ার জন্য নীতীশের আহ্বানে তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে আরজেডি। "লালুর ভীতিই বিহারের মুখ্যমন্ত্রীকে নির্বাচনের আগে তাকে নিয়ে কথা বলতে বাধ্য করেছে। বিহারে গত ৩০ বছর ধরে রাজনীতি লালুর আসে পাশেই  ঘুরছে", বললেন আরজেডি মৃত্যুঞ্জয় তিওয়ারি।