দূষণ তীব্র দিল্লিতে তাই গোয়া চলে গেলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গাঁধী

দূষণ তীব্র দিল্লিতে তাই  গোয়া চলে গেলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গাঁধী

দূষণ তীব্র দিল্লিতে তাই  গোয়া চলে গেলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গাঁধী ।  দিল্লিজুড়ে প্রবল দূষণ, বাড়ছে করোনা সংক্রমণের হার। এই পরিস্থিতিতে রাজধানী শহরে থাকলে সোনিয়া গান্ধীর বুকের সংক্রমণ বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা।

তাই কিছুদিনের জন্য কংগ্রেস সভানেত্রী গোয়া  থাক বেন বলে দলীয় সূত্রে খবর। জানা গিয়েছিল, রাহুল বা প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর সঙ্গে দিল্লি ছাড়ের সোনিয়া। সেই মতই এদিন বিকেলে গোয়ায় পৌঁছন তিনি।   তবে একটি সূত্রের দাবি, সনিয়া প্রতি বছরই এ সময়ে গোয়া যান।

গত বছর জানুয়ারিতেও কিছুদিনের জন্য গোয়ায় গিয়েছিলেন তিনি। সেখানে তাঁর সাইক্লিংয়ের ছবি সোস্য়াল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়।এমন সময় তিনি রাজধানীর বাইরে গেলেন যখন বিহার ভোটে দলের শোচনীয় ফলের প্রেক্ষিতে কংগ্র্রেসে আত্মসমীক্ষার দাবি উঠছে।

দলের কিছু নেতা খোলনলচে বদলে সংগঠন ঢেলে সাজার দাবি জানিয়ে তাঁকে চিঠিও লিখেছেন।সনিয়া গত ৩০ জুলাই সন্ধ্যায় দিল্লির স্যার গঙ্গা রাম হাসপাতালে ভর্তি হন। গত ১২সেপ্টেম্বর তিনি কয়েকদিনের জন্য বিদেশে যান রুটিন মেডিকেল চেক আপে।

সঙ্গী ছিলেন রাহুল। করোনা অতিমারী পর্বে ১৪ থেকে ২৩ সেপ্টেম্বর বিশেষ পরিস্থিতিতে সংসদের অধিবেশন বসেছিল। তাতে থাকতে পারেননি তাঁরা। গত বছরের নভেম্বরে প্রবল দূষণ এবং ধোঁয়াশার কারণে দিল্লির একিউআই ৬০০-র কাছে পৌঁছে গিয়েছিল।

ফলে পরিস্থিতি ‘অতি সঙ্কটজনক’ হয়ে ওঠে। এ বারও তেমন কিছু ঘটলে তার প্রভাব ক্ষতিকর হতে পারে বলে মনে করছেন সনিয়ার চিকিৎসকেরা। তাই আপাতত দিল্লি ছা়ড়ছেন কংগ্রেস সভানেত্রী।