এবার সেনার হাতে নয়া 'কবচ', ভেদ করতে পারবে না AK-47-এর গুলিও

এবার সেনার হাতে নয়া 'কবচ', ভেদ করতে পারবে না AK-47-এর গুলিও

আজ বাংলা: নিজেদের জীবন বাজি রেখে সর্বত্র আমাদের রক্ষা করে চলেছেন তারা।  যেনতেন প্রকারে শত্রুপক্ষের মোকাবিলা করতে হয় তাঁদের। পেওটি মুহূর্তই মৃত্যু যেন ঘাপটি মেরে রয়েছে। ফলে সেনা জওয়ানদের কথা ভেবেই তাঁদের নিরাপত্তায় আরও জোর দিতে চাইছে কেন্দ্র।

নিজের দেশকে সুরক্ষিত রাখতে একাধিক পদক্ষেপ নেওয়ার পাশাপাশি নতুন অস্ত্রেরও ব্যবহার করে থাকে ভারতের সেনাবাহিনী। এবার সেনা জওয়ানদের সুরক্ষাতেই নতুন বুলেট প্রুফ জ্যাকেটের ব্যবস্থা করছে কেন্দ্রীয় সরকার। এই অভিনব জ্যাকেটগুলি তৈরি করছে ভাবা অ্যাটোমিক রিসার্চ সেন্টার। এই নতুন এই জ্যাকেটের নাম 'ভাবা কবচ'।

জানা গিয়েছে, হায়দ্রাবাদের মিশ্র ধাতু নিগম মিধানিতে তৈরি করা হচ্ছে এই নতুন ধরনের জ্যাকেট। এই বুলেট প্রুফ জ্যাকেট ছাড়াও সেনা বাহিনীর নিরাপত্তায় বুলেট প্রুফ যানও তৈরি করা হচ্ছে। সেইসঙ্গেই তৈরি করা হয়েছে বিশেষ ধরনের তাঁবু।

সূত্রের খবর, ডিসেম্বর মাসে লাদাখের মতো একাধিক জায়গায় তাপমাত্রা মাইনাস ডিগ্রিতে নেমে যায়। সেখানে বিশেষ ধরনের তাঁবু পাঠানো হয়েছে, তার মধ্য একসঙ্গে ৮ থেকে১০ জন সেনা থাকতে পারবেন৷

এছাড়াও শত্রু পক্ষকে হারানোর পাশাপাশি সেনাদের দেওয়া হবে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা। শীতে ব্যবহৃত সরঞ্জাম এবং তাপ নিয়ন্ত্রক নানা বস্তু তুলে দেওয়া হচ্ছে সেনার হাতে। সঙ্গে থাকছে আরও অত্যাধুনিক সরঞ্জাম। যেমন ফাইবার প্লাস্টিকের ইগলু, তাঁবু এবং বিশেষ তুষার বুটের জন্য সেনার তরফেই আবেদন করা হয়েছিল।

প্রবল শীতে ভারতীয় সেনার লড়াই করতে যাতে সমস্যা না হয়, সেই কারণেই তৈরি করা হয়েছে ও হচ্ছে এইসব অত্যাধুনিক সরঞ্জাম। আর সেই নতুন জিনিসগুলির মধ্যেই নতুন সংযোজন 'ভাবা কবচ' জ্যাকেট, জানা গিয়েছে AK-47 রাইফেলের গুলিও এই জ্যাকেট ভেদ করে ঢুকতে পারবে না।