মাস্ক না পড়লে প্রশাসন থেকে দেওয়া হচ্ছে অদ্ভুত শাস্তি। জানুন বিস্তারিত

মাস্ক না পড়লে প্রশাসন থেকে দেওয়া হচ্ছে অদ্ভুত শাস্তি। জানুন বিস্তারিত

আজবাংলা  করোনা ভাইরাসের জেরে এখন পৃথিবীর সব প্রান্তেই মাস্ক পড়ে ঘুরতে হবে। কিন্তু কিছু মানুষ সব দেশেই রয়েছে, যারা কিনা এই মহামারীর মত অবস্থাতেও মাস্ক না পরেই ঘুরে বাড়াচ্ছেন। হাজার রকমভাবে বুঝেও তাঁদের হুঁশ ফেরানো যায়নি। সেইকারনে, ইন্দোনেশিয়ার সরকার একেবারে এক অভিনব উপযুক্ত শাস্তির বন্দোবস্ত করেছে। সূত্র মারফৎ জানা গিয়েছে, এখনো অবধি পূর্ব জাভা অংশে আটজন এই কঠিন শাস্তির মুখে পড়েছেন।   

যারা যারা মাস্ক পড়তে চাইছেন না বা বাইরে বেরিয়ে মাস্ক খুলে ফেলছেন, তাঁদের দিয়ে আগাম খুঁড়িয়ে নেওয়া হচ্ছে করোনায় মৃতদের কবর। প্রত্যেক কবরের জন্য দু’‌জন করে কাজে লেগে পড়েছেন। আন্তর্জাতিক সংবাদসংস্থা ডেইলি মেল, নাগাবেটান গ্রামে এই ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে। প্রশাসন জানিয়েছেন, যেহেতু তাঁদের মাত্র তিনজন লোক রয়েছে কবর খোঁড়ার জন্য, শাস্তি হিসাবে বাকিদের এদের সঙ্গে কাজে লাগানর বন্দোবস্ত করা হয়েছে।

এখনও পর্যন্ত জাকার্তায় আক্রান্তের সংখ্যা হয়েছে ৫৪ হাজার ২২০। অন্যদিকে, পূর্ব জাভায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৮,০৮৮। এদিকে দেশের মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়ে ৮,৭২৩ জন। কবর খোঁড়ার প্রসঙ্গে নদি বান জি নামে কবরখানায় কর্মরত একজন স্তানিয় বলেছেন, এখনও পর্যন্ত প্রায় ২৬০০ কবর খুঁড়েছেন, শুধুমাত্র করোনার মৃতদের জন্য।

সরকারের আশা, এরফলে যারা মাস্ক পড়তে চাইবে না, তাঁরা নিজেরাই দেখতে পাবে নিজেরদের ভবিষ্যৎ। কারন কতটা ভয়াবহ পরিস্থিতি হতে পারে, সেটা নিজেরাই বুঝতে পারবে ওই বিশেষ শাস্তিটি ভোগ করতে করতে। আর এরফলেই নিজেদের শুভবোধ ফিরে আসবে বলে ধারনা ওখানকার প্রশাসনের। এখনও ইন্দোনেশিয়ার গ্রামে গ্রামে করোনা সংক্রমণের পরিমাণ বেড়েই চলেছে।