কাঠের সাইকেল বানিয়ে কানাডা থেকে বরাত পেলেন ভারতীয় যুবক

কাঠের সাইকেল বানিয়ে কানাডা থেকে বরাত পেলেন ভারতীয় যুবক

আজবাংলা     করোনাভাইরাসের অতিমারিতে বহু মানুষ জীবিকা হারিয়েছেন। অনেকেই আবার জীবিকা বদলাতে বাধ্য হয়েছেন। আবার দীর্ঘ লকডাউনের অফুরন্ত সময়ে অনেকেই নিজের অপূর্ণ ইচ্ছা পুরণ বা সৃজনশীলতাকে বিকশিত করার চেষ্টা করেছেন। তেমনি এক সফল যুবক পঞ্জাবের ধানিরাম সাগ্গু।

যিনি পেশায় সাধারণ কাঠের মিস্ত্রি ছিলেন। কিন্তু এখন তিনি আত্মনির্ভরশীল, তাঁর তৈরি অভিনব সাইকেলের বরাত সুদূর কানাডা থেকেও আসছে।প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আত্মনির্ভর হওয়ার কথা বলেছেন। পঞ্জাবের ছোট্ট একটি শহর জিরাকপুরের ধানি কাজ হারিয়ে এপ্রিল মাস থেকেই মাঠে নেমে পড়েছেন আত্মনির্ভর হতে।

অনেক ভাবনা-চিন্তার পর তিনি ঠিক করেন, যতটা সম্ভব পরিবেশ বান্ধব উপাদান দিয়ে তিনি একটি সাইকেল বানাবেন। সাইকেল এমনিতেই পরিবেশ বান্ধব, তার উপর এটির উপাদানও আবার পরিবেশ বান্ধব। এই সাইকেল তৈরি করতে গিয়ে প্রথমে বার দুয়েক ব্যর্থও হন ধানি, কিন্তু হাল ছাড়েননি। শেষ পর্যন্ত প্লাইউড, করাত আর কিছু ছোটখাটো যন্ত্রপাতি দিয়ে বানিয়ে ফেলেন কাঠের সাইকেল।

যার মূল কাঠামোটি প্লাইউডের তৈরি। চাকা, প্যাডলের মতো অংশগুলি অবশ্য অন্য সাইকেলের মতো ধাতুর।ধানির এই সাফল্যের কথা এলাকার মানুষের কাছে ও পরে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে পড়ে। বিভিন্ন জায়গা থেকে ধানি কাঠের সাইকেলের বরাত পেতে থাকেন। এক একটি সাইকেল ধানি ১৫ হাজার টাকায় বিক্রি করছেন। ফলে তিনি মুনাফাও পাচ্ছেন। শুধু তাই নয়, এখন তিনি কানাডা থেকেও বরাত পেয়েছেন।