লকডাউনের ভোরে দুর্ঘটনার বলি কলকাতা পুলিশের প্রথম মহিলা ওসি সহ ৩

লকডাউনের ভোরে দুর্ঘটনার বলি  কলকাতা পুলিশের প্রথম মহিলা ওসি  সহ ৩

আজবাংলা    লকডাউনের ভোরে দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল এক পুলিশ অফিসারের। বেহালার বাসিন্দা ওই অফিসারের পোস্টিং ছিল শিলিগুড়িতে। তাঁর পাশাপাশি মৃত্যু হয়েছে আরও দু জনের।শুক্রবার লকডাউনের দিন ভয়াবহ দুর্ঘটনা। সাতসকালে দাঁড়িয়ে থাকা ১২ চাকার বালির লরির পিছনে ধাক্কা মারে একটি চার চাকার গাড়ি।

ঘটনায় মৃত্যু হয় এক পুলিশ অফিসার সহ মোট তিনজন। মৃত পুলিশ অফিসারের নাম দেবশ্রী চট্টোপাধ্যায়। তাঁর বাড়ি কলকাতার বেহালার পর্ণশ্রীতে। তিনি রাজ্য পুলিশের ১২ব্যাটেলিয়নের কম্যান্ডিং অফিসার ছিলেন।

শিলিগুড়ির ডাবগ্রামে ছিল তাঁর পোষ্টিং।ওই গাড়িতেই থাকা বাকি দু'জনের মধ্যে একজন হলেন দেবশ্রীর দেহরক্ষী ও একজন গাড়ির চালক। তাঁদের দু'জনের এখনও পরিচয় জানা যায়নি। শুক্রবার সকাল ৬টা ১০-এ কলকাতার দিকে যাওয়ার পথে নিয়ন্ত্রণ হারায় তাঁদের গাড়ি।

দাদপুর থানার হোদলা ব্রিজের কাছে দাঁড়িয়ে থাকা একটি বালির লরির পিছনে সজোরে ধাক্কা মারে গাড়িটি।তড়িঘড়ি রাস্তায় কর্মরত সিভিক ও পুলিশকর্মীরা তিনজনকে উদ্ধার করে চুঁচুড়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। তাঁদের পরীক্ষা-নীরিক্ষা করে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন।

ঘটনার পর চুঁচুড়া হাসপাতালে যান হুগলির গ্রামীণ পুলিশ সুপার তথাগত বসু।কলকাতা পুলিশের প্রথম মহিলা ওসি ছিলেন দেবশ্রী চট্টোপাধ্যায়। ২০১০ সালে উত্তর বন্দর থানায় ওসি হন তিনি। ২০১৬ সালে বিধানসভা নির্বাচনের পর যে অফিসারদের কলকাতা থেকে জেলায় ডেপুটেশনে পাঠানো হয়েছিল, তিনি ছিলেন তাঁদের মধ্যে অন্যতম।