ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা, জেলা প্রশাসনকে সতর্কবার্তা নবান্নর

ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা, জেলা প্রশাসনকে সতর্কবার্তা নবান্নর

ভোট গণনার দিন অর্থাত্‍ ২ মে থেকে আগামী ৬ মে পর্যন্ত রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় ঝোড়ো হাওয়া এবং বজ্রপাত-সহ মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা। এমনটাই জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর। যদি তেমনই হয়, সে ক্ষেত্রে পরিস্থিতি মোকাবিলায় সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য জেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে নবান্ন। পাশাপাশি সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে সাধারণ মানুষকেও।

আবহাওয়া দফতর সূত্রে জানানো হয়েছে, আগামী ২ থেকে ৫ মে উত্তরবঙ্গের কয়েকটি জেলা ছাড়াও দক্ষিণবঙ্গের নদিয়া, মুর্শিদাবাদ, বীরভূম এবং উত্তর ২৪ পরগনা জেলার কোনও কোনও স্থানে ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। সেইসঙ্গে বজ্রপাত এবং ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে বলেও জানানো হয়েছে।রাজ্য সরকারের বিপর্যয় মোকাবিলা বিভাগের তরফে জেলাশাসক, পুলিশ সুপার-সহ কৃষি দফতরের আধিকারিকদের অনুরোধ করা হয়েছে, তাঁরা যেন নিম্নলিখিত বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেন।

• জন সচেতনতার জন্য প্রচার করা।

• জনগণের প্রাণ এবং সম্পত্তি রক্ষা করার জন্য কুইক রেসপন্স টিম প্রস্তুত রাখা।

• সকল ব্যবস্থা গ্রহণের সময় কোভিড বিধি সার্বিক ভাবে পালনের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। যাতে দূরত্ববিধি, মাস্ক পরা এবং হ্যান্ড স্যনিটাইজার ব্যবহারের কথা বলা হয়েছে।

• আবহাওয়া দফতরের সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তির প্রতি নজর রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। আবহাওয়া দফতর প্রতি জেলায় প্রাকৃতিক দুর্যোগের ১ বা ২ ঘণ্টা আগে যে সতর্কবার্তা পাঠাবে সে দিকে কঠোর নজর রাখা এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

দুর্ঘটনা এড়াতে জন সাধারণকেও একাধিক বিষয়ে সতর্ক করা হয়েছে নবান্নের তরফে।

• বজ্রপাত-সহ বৃষ্টি চলাকালীন খোলা আকাশের নীচে থাকতে নিষেধ করা হয়েছে। কোনও পাকা বাড়িতে আশ্রয় নিতে বলা হয়েছে।

• কোনও গাছের তলায় আশ্রয় নিতে নিষেধ করা হয়েছে।

• কৃষকদের দুর্যোগের সময় মাঠে বা খোলা আকাশের নীচে থাকতে নিষেধ করা হয়েছে।