লুঙ্গি পরে পরীক্ষায় কলেজে পড়ুয়া | বহিষ্কার করলো বিশ্ববিদ্যালয়

লুঙ্গি পরে পরীক্ষায় কলেজে  পড়ুয়া | বহিষ্কার করলো  বিশ্ববিদ্যালয়

অনলাইন পরীক্ষা চলার সময় লুঙ্গি পরে পরীক্ষা দেওয়ায় Bangladesh বাংলাদেশের দিনাজপুরের একটি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে তিনজন পড়ুয়াকে পরীক্ষায় বসতে দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ। যদিও ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের দাবি, লুঙ্গি পরার জন্য এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। ওই তিনজনই অনলাইনে পরীক্ষা দেওয়ার নিয়ম মানেনি এবং তাই ‘বহিষ্কার’-এর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে দাবি বিশ্ববিদ্যালয়ের।

 পড়ুয়াদের তরফ থেকে দাবি করা হয়েছে, সোমবার ছিল রসায়নের পরীক্ষা। দুপুর সাড়ে ১২টার সময় পরীক্ষা শুরু হয়। তার পর এক জনকে ক্যামেরা ঠিক করতে বলা হয়। তিনি ক্যামেরা ঠিক করার পর শিক্ষক দেখতে পান, ওই পড়ুয়া লুঙ্গি পরে পরীক্ষা দিচ্ছেন। তখনই তাঁকে যে অনলাইন মাধ্যমে পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছিল, সেখান থেকে বার করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

তার পর বাকি আরও দু’জনকে একই কারণে বার করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করেছেন আরও দু’জন। এই তিন পড়ুয়ারই দাবি, তাঁরা এই ঘটনার পর সুপারভাইজারকে ফোন করেন। তিনিও বিষয়টির কোনও সুরাহা করতে পারেননি। বাকি যাঁরা পরীক্ষা দিচ্ছিলেন, তাঁদেরও অনেকে জানিয়েছেন, ঘটনাটি সত্যি। অবশ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এই অভিযোগ একেবারেই সত্যি নয়।

অনেকেই লুঙ্গি পরে পরীক্ষা দিয়েছেন। তেমন হলে সকলকেই বার করে দেওয়া হত। কেন শুধু ওই তিন জনকেই বার করে দেওয়া হবে?এ ছাড়াও এ দিন খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ ও কারিগরি বিভাগের একটি সেমেস্টার পরীক্ষায় বেশ কয়েকজন পড়ুয়াকে বসতে দেওয়া হয়নি বলেও অভিযোগ উঠেছে। এ ছাড়া পরীক্ষায় নকল করার অভিযোগেও দু’জনকে বহিষ্কার করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।