মানবজাতিকে রক্ষা করবে ভারতের তৈরি ২টি করোনা টিকা: প্রধানমন্ত্রী

মানবজাতিকে রক্ষা করবে ভারতের তৈরি ২টি করোনা টিকা: প্রধানমন্ত্রী

তাঁর নেতৃত্বে নতুন ভারত এখন অনেক 'আত্মনির্ভর'। কিছুদিন আগেও মেডিক্যাল সরঞ্জাম বিদেশ থেকে আমদানি করতে হত ভারতকে। কিন্তু এখন ভারতই করোনার টিকা তৈরি করে মানবজাতির ত্রাতার ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে প্রস্তুত।

শনিবার প্রবাসী ভারতীয়দের সামনে এই ভাবেই 'আত্মনির্ভর ভারতের' উজ্জ্বল ভাবমূর্তি তুলে ধরলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ১৯তম প্রবাসী ভারত দিবস উপলক্ষে ভার্চুয়াল বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর দাবি, 'কিছু দিন আগেও পিপিই কিট, মাস্ক, ভেন্টিলেটর-সহ টেস্টিং কিট বাইরে থেকে আমদানি করত ভারত।

তবে এখন আমাদের দেশ 'আত্মনির্ভর'।' করোনা মোকাবিলায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশকে টেক্কা দিয়েছে ভারত। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে শুরু করে রাষ্ট্রসংঘেও ভারতের ভূমিকার প্রশংসা করেছে। ইতিমধ্যেই অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা ও সেরাম ইনস্টিটিউটের তৈরি কোভিশিল্ড এবং ভারত বায়োটেক-আইসিএমআরের তৈরি কোভ্যাক্সিন টিকাকে জরুরি প্রয়োগের জন্য অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্র।

এছাড়াও আহমেদাবাদের ওষুধ প্রস্ততকারী সংস্থা জাইডাস-ক্যাডিলার টিকারও ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল চলছে। এই প্রসঙ্গেই এদিন প্রধানমন্ত্রীর দাবি, 'আজ, আমরা ভারতে তৈরি দুটি করোনা ভ্যাকসিনের মাধ্যমে গোটা মানবজাতিকে রক্ষা করতে প্রস্তুত।'

তিনি আরও বলেছেন, 'বিশ্বের সেই সব দেশের মধ্যে ভারত পড়ে যেখানে করোনায় মৃত্যুহার সর্বনিম্ন এবং এবং সুস্থতার হার সর্বাধিক। অতিমারী আবহে যেভাবে দেশ একসঙ্গে লড়াই করেছে তার কোনও তুলনা হয় না। ভারত বিশ্বের ধন্বন্তরীর মতো সব দেশকে জরুরি ওষুধ সরবরাহ করেছে, এবং আগামিদিনেও করবে।'