আনিস-হত্যায় গ্রেফতার রাজ্য পুলিশের দু’জন

আনিস-হত্যায় গ্রেফতার রাজ্য পুলিশের দু’জন

আনিস খানের মৃত্যুর (Anis Khan Death) পর কয়েকদিন কেটে গেলেও এখনও কেন অধরা ঘটনার মূল অভিযুক্তরা, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছিলই। পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ থাকার কারণেই বারবার সিবিআই তদন্তের দাবি জানাচ্ছে আনিসের পরিবার। এই পরিস্থিতিতে বুধবার দুপুরে নবান্ন থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ''কারও কোন অপশাসন, দুঃশাসনের কাজ বরদাস্ত করব না।

আমতার ঘটনার জন্য আমরা তদন্ত শুরু করেছি। পুলিশের দুজন অ্যারেস্ট হয়েছে। তাদেরকে হেফাজতে রাখা হয়েছে। যাতে তদন্ত নিরপেক্ষ হয় পুলিশের নামে অভিযোগ এসেছে।'' বারবার সিবিআই তদন্তের দাবি উঠছে আনিস কাণ্ডে। সেই বিষয়েও এদিন মুখ খুলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বলেন, ''আমিও আন্দোলন করে উঠেছি। গতকাল কলকাতায় কত সমস্যা হয়েছে। অনেকেই ফ্লাইট ধরতে পারেনি।

এই সংস্কৃতি বাংলা সহ্য করবে না। সিপিআইএম,বিজেপি-র ইন্টারেস্ট দেখার জন্য আমি আসিনি। মানুষের ইন্টারেস্ট দেখার জন্য এসেছি। এতটা দুর্বল আমাদের ভাবতে যাবেন না। সিপিআইএম এত কথা বলছে, দেখাতে পারবে ওরা কাউকে অ্যারেস্ট করেছে কখনও। সিঙ্গুর তাপসী মালিকের হত্যার কী বিচার হয়েছে? রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নোবেল পাওয়া গেছে কি? হাথরস, উন্নাওতে কী হয়েছে, সবাই জানি আমরা।''

প্রসঙ্গত, আনিস হত্যায় সিট গঠন করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। এর আগে সাসপেন্ড করা হয়েছিল তিন পুলিশ কর্মীকে। ফলে বিষয়টি নিয়ে ক্রমেই বাড়ছে ক্ষোভ। মঙ্গলবারই আনিসের (Anis Khan Death Update) মৃত্যুর ঘটনার প্রতিবাদে কলকাতার রাজপথে বিক্ষোভ দেখান ছাত্ররা। মঙ্গলবার আনিস খানের বাড়িতে গেলে প্রথমে কিছুক্ষণ বাধা পেলেও অবশেষে বাড়িতে ঢুকতে পারেন SIT-এর তদন্তকারী অফিসাররা। বুধবারও তাঁরা যায় আনিসের বাড়িতে। সেই সময়ও সিবিআই তদন্তের দাবি জানিয়েছে পরিবার।