মহিলাদের রয়েছে ছাড়পত্র , পুরুষ নিষিদ্ধ এই বিশেষ দ্বীপে

মহিলাদের রয়েছে ছাড়পত্র , পুরুষ নিষিদ্ধ এই বিশেষ দ্বীপে

আজবাংলা  পৃথিবীর বুকে এমনও এক দ্বীপ রয়েছে, যেখানে পুরুষ প্রবেশ একেবারে নিষিদ্ধ। গোটা দ্বীপ জুড়ে পা রাখতে পারেন না কোনও পুরুষ। শুধুমাত্র মহিলাদেরই যাওয়ার ছাড়পত্র রয়েছে ওই বিশেষ দ্বীপে। কিন্তু কেন কোনও পুরুষ যেতে পারে না ওই দ্বীপে? এমন কী রহস্য আছে ওই জায়গায়?যে পুরুষদের পক্ষে সেই দ্বীপে যাওয়া বিপজ্জনক? না, আদতে ওই দ্বীপে ভয়ঙ্কর কিছুই নেই। লুকিয়ে নেই কোনও রহস্যও। দ্বীপটির নাম SuperShe Island সুপারসি আইল্যান্ড।

ফিনল্যান্ডের কাছে বাল্টিক সাগরের বুকে অবস্থিত এই দ্বীপ। আর গোটা দ্বীপটিই (৮.৪৭ একর) সম্প্রতি কিনে নিয়েছেন মার্কিন এক মহিলা ব্যবসায়ী, যার নাম ক্রিস্টিনা রথ।আর তিনিই ওই দ্বীপে পুরুষ প্রবেশ একেবারে নিষিদ্ধ করে দিয়েছেন। আসলে ক্রিস্টিনা শুধুমাত্র মহিলাদের জন্যই এমন একটা জায়গা তৈরি করতে চেয়েছিলেন, যেখানে গিয়ে তারা সব সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন।

আমেরিকান উদ্যোক্তা, ক্রিস্টিনা রথ, প্রযুক্তি পরামর্শদাতা সংস্থা ম্যাটিসিয়া কনসালট্যান্টের প্রাক্তন মালিক দ্বারা কিনেছিলেন। রথ তার কোম্পানিকে 2016 সালে বিক্রি করে  $65 মিলিয়ন রাজস্বের বিনিময়ে, এবং 2017 সালে দ্বীপটি কিনেছিল যাতে এটি শুধুমাত্র মহিলাদের জন্য জায়গাতে রূপান্তরিত হয়। 23 জুন, 2018 এ দ্বীপটি সুপারশে সম্প্রদায়ের জন্য উন্মুক্ত ছিল। 

দ্বীপটি বিশ্বব্যাপী মিডিয়ার অনেক মনোযোগ আকর্ষণ করেছে কারণ সপ্তাহব্যাপী থাকার মূল্য 4,600 ইউরো। 2018 সালে, সম্ভাব্য অতিথিদের একটি কঠোর নির্বাচন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছিল, সংস্থার ওয়েবসাইটের মাধ্যমে যেখানে রথ অতিথির ব্যক্তিত্বের সন্ধান করতেন, যে কারণে কিছু সমালোচক প্রকল্পটিকে "অভিজাত" হিসাবে চিহ্নিত করেছেন  তবে, রথ সমালোচনা প্রত্যাখ্যান করেছেন। ডিসেম্বর 2019 অনুযায়ী, দ্বীপটি শুধুমাত্র SuperShe অ্যাপের সক্রিয় সদস্যদের জন্য উন্মুক্ত।

ওই দ্বীপে গিয়ে তারা দৈনন্দিন জীবন থেকে দূরে গিয়ে নিজেদের ফিটনেস, নিউট্রিশনের দিকে ধ্যান দিতে পারবেন।সেই জন্য রথ ওই দ্বীপে একটি রিসোর্ট গড়ে তুলছেন। সেখানে ৪টি বড় বড় কেবিন আছে এবং প্রতি কেবিনে ১০ জন করে মহিলা থাকতে পারবেন। রয়েছে স্পা, সওনা বাথের ব্যবস্থা। এর জন্য জনপ্রতি পাঁচদিনের খরচ দুই থেকে চার লক্ষ টাকা।তবে স্রেফ টাকা দিলেই ওই দ্বীপে যাওয়ার অনুমতি মিলবে না। এর জন্য বহুদিন আগে থেকে বুকিং করাতে হয়। তারপর হয় ইন্টারভিউ। সেই ইন্টারভিউ ক্লিয়ার করলে তবেই মিলবে ওই দ্বীপে যাওয়ার অনুমতি। 

আরো পড়ুন      জীবনী  মন্দির দর্শন  ইতিহাস  ধর্ম  জেলা শহর   শেয়ার বাজার  কালীপূজা  যোগ ব্যায়াম  আজকের রাশিফল  পুজা পাঠ  দুর্গাপুজো ব্রত কথা   মিউচুয়াল ফান্ড  বিনিয়োগ  জ্যোতিষশাস্ত্র  টোটকা  লক্ষ্মী পূজা  ভ্রমণ  বার্ষিক রাশিফল  মাসিক রাশিফল  সাপ্তাহিক রাশিফল  আজ বিশেষ  রান্নাঘর  প্রাপ্তবয়স্ক  বাংলা পঞ্জিকা