আপনার দাম্পত্য জীবন বা বিবাহযোগ সম্পর্কে জানতে চান? জেনে নিন

আপনার দাম্পত্য জীবন বা বিবাহযোগ সম্পর্কে জানতে চান? জেনে নিন

এই রেখাকে অনেকে বুধ রেখা বলে থাকেন। বিবাহ রেখা বিচার করার সময় তার অগ্রগতি বা বাধা দেখে নিতে হবে। তার সঙ্গে বৃহস্পতি বা চন্দ্রের উপর কোনও রেখা থাকলে তা-ও বিচার করতে প্রয়োজন। এই রেখার মাধ্যমেই প্রেম, বিবাহ ও দাম্পত্যে আসক্তি সম্পর্কে জানা সম্ভব হয়।

এ বার জেনে নেওয়া যাক এই বিবাহ রেখার অবস্থান ঠিক কোথায়! কনিষ্ঠা আঙুলের মূলদেশের নিচে হৃদয়রেখার ওপর বুধক্ষেত্রের মধ্যে করতলের পাশে অঙ্কিত রেখাগুলিকে জ্যোতিষশাস্ত্র মতে বিবাহ রেখা বলা হয়। এ বার জেনে নেওয়া যাক বিবাহ রেখার কোন অবস্থানের কী অর্থ!

১) বিবাহেররেখা না থাকলে বা সামান্য অস্পষ্ট থাকলে, জাতকের বিবাহে ভীষণ ভাবে বাধা আসতে পারে।

২) বিবাহরেখা সরল ও অখণ্ডিত হলে জাতকের বিবাহিত জীবন সুখের হয়। কিন্তু বিবাহরেখার উপরে যবচিহ্ন থাকলে— দাম্পত্য জীবন অশান্তি, কলহপূর্ণ ও দুঃখের হয়ে থাকে। 

৩) বিবাহরেখার মধ্যে বুধরেখা ক্ষেত্রস্থিত প্রথম রেখাটি বিবাহ রেখা বোঝায়। তবে দুইটি স্পষ্ট এবং সমান রেখা থাকলে, তা দুইটি বিবাহ বোঝায়।

৪) যদি তা না হয়, জাতক কোনও দ্বিতীয় নারীর গোপন প্রেমে আবদ্ধ হয়ে তার সঙ্গে বিবাহিতদের মতো জীবন কাটায়। বিবাহ রেখা স্পষ্ট ও গভীর হলে, জাতকের বিবাহের সম্ভাবনা প্রায় ষোল আনা থাকে। তা অস্পষ্ট ও ভগ্ন হলে, জাতকের প্রেমে বাধা ও প্রবঞ্চনা বোঝায়। 

৫) এই রেখা অনুগামী ছোট ছোট রেখা থাকলে তা দ্বিতীয় বা তৃতীয় বিবাহ না হলেও হতে পারে। এটা আরও বোঝায়,প্রেম বা বিবাহের কথাবার্তা বা সম্বন্ধ হয়ে ভেঙে যাওয়া ইত্যাদি।

৬) জাতকের স্ত্রীর হাতে বিবাহরেখার পাশে অনুগামী রেখা থাকলে, তা দ্বিতীয় বিবাহ বোঝায় না—বোঝায় সাময়িক ও মানসিক দুর্বলতা।

আরো পড়ুন      জীবনী  মন্দির দর্শন  ইতিহাস  ধর্ম  জেলা শহর   শেয়ার বাজার  কালীপূজা  যোগ ব্যায়াম  আজকের রাশিফল  পুজা পাঠ  দুর্গাপুজো ব্রত কথা   মিউচুয়াল ফান্ড  বিনিয়োগ  জ্যোতিষশাস্ত্র  টোটকা  লক্ষ্মী পূজা  ভ্রমণ  বার্ষিক রাশিফল  মাসিক রাশিফল  সাপ্তাহিক রাশিফল  আজ বিশেষ  রান্নাঘর  প্রাপ্তবয়স্ক  বাংলা পঞ্জিকা