ফের বৃষ্টি, জেনে নিন আবহাওয়ার খবর

ফের বৃষ্টি, জেনে নিন আবহাওয়ার খবর

ফের বৃষ্টির ভ্রুকুটি , শুক্রবার বৃষ্টিপাত হতে পারে শহর কলকাতায়, জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। বঙ্গোপসাগর থেকে আসা জলীয় বাষ্পপূর্ণ হাওয়ার দরুন গতকাল বাঁকুড়া, পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম ও মুর্শিদাবাদের মতো জেলাগুলিতে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত হয়েছিল। পশ্চিমের জেলাগুলির উপর প্রভাব বেশি পড়লেও আজ কলকাতাতেও ছিটেফোঁটা বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।

দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলির আকাশ মূলত মেঘলা থাকবে। সকালের দিকে ঘন কুয়াশার চাদরে মোড়া থাকবে কলকাতা সহ অন্যান্য জেলাগুলি। কিন্তু, বেলা গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে বাড়বে দৃশ্যমানতাও। শুক্রবার কলকাতা সহ লাগোয়া জেলাগুলিতে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা। শনিবার ফের বৃষ্টিপাত হতে পারে পশ্চিমের জেলাগুলি অর্থাৎ বাঁকুড়া, পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম ও মুর্শিদাবাদে।

রবিবার থেকে হাওয়া বদল শুরু হবে আকাশ থাকবে মেঘমুক্ত। অন্যদিকে ঠান্ডা ধীরে ধীরে কমতে শুরু করছে। তাপমাত্রা নতুন করে বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা নেই বলেই জানাচ্ছে হাওয়া অফিস।  উত্তরবঙ্গেও বৃষ্টিপাত হতে পারে। গতকাল দার্জিলিং এবং কালিম্পংয়ে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা ছিল।

শুক্রবার আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার ও জলপাইগুড়ি, মালদা, উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুরে মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। শনিবার পরিস্থিতির খানিকটা উন্নতি হবে বলে জানা যাচ্ছে। অন্যদিকে, ধীরে ধীরে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতেও ঠান্ডা কমবে।  শহর কলকাতায় তাপমাত্রার পারদ ক্রমশ ঊর্ধ্বমুখী। ধীরে ধীরে আরও তাপমাত্রা বাড়বে এবং ভোর-রাতে শীত শীত ভাবটুুকুও গায়েব হয়ে যাবে বলে জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

কলকাতার আকাশ এদিন মেঘাচ্ছন্ন থাকতে পারে। রয়েছে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা। গতকাল কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৯.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি কম এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রাা ছিল ১৯.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ সর্বাধিক ৯১ শতাংশ। এদিন কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকতে পারে ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকতে পারে ২০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি, জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। 

এই বছর সময়ে অসময়ে নিম্নচাপের ফলে হয়েছে বৃষ্টিপাত। আগামী সপ্তাহের শুরুতেই বৃষ্টিপাতের কোনও সম্ভাবনা নেই, জানাচ্ছে হাওয়া অফিস। তবে আর কামব্যাক নয় শীতের। ধীরে ধীরে চড়বে তাপমাত্রার পারদ। বছরের মতো শীত ফুরলো বলছেন আবহাওয়াবিদরা।