মেদ জমেছে? তাহলে আজই বাড়িতে এই ভাবে বানিয়ে ফেলুন আমলকির জুস

মেদ জমেছে? তাহলে আজই বাড়িতে এই ভাবে বানিয়ে ফেলুন আমলকির  জুস

আজ বাংলা:    দীর্ঘ সময় বসে বসে কাজ করা, দৈহিক পরিশ্রম কম হওয়ার কারণে পেটে মেদ জমতে থাকে। পেটে মেদ বা চর্বি হলে চলা-ফেরায় যেমন কষ্ট হয়, তেমনি নষ্ট হয় সৌন্দর্যও। অনেকে আছেন খুব বেশি মোটা না কিন্তু পেটে অনেক মেদ কিংবা দেহের কিছু কিছু স্থানে মেদ জমায় খুবই অস্বস্তি বোধ করেন। কোনো ভালো পোশাক পড়লেও ভালো লাগে না।

নারী পুরুষ নির্বিশেষে সকল বয়সের মানুষের এক বড় সমস্যা পেটের মেদ। অফিসে কাজের জন্য হোক কিংবা সন্তান জন্মদান-যেকোনো কারণেই হতে পারে এই মেদের সমস্যা। শত চেষ্টা করে, ডায়েট প্ল্যান করে কিংবা ব্যায়াম করেও যেন কমানো যায় না এই পেটের মেদ। তাই রোজকার রুটিনে কিছু কাজ বা অভ্যাস যোগ করলে সহজেই দূরে থাকতে পারেন এই সমস্যা থেকে।

শরীরের ওজন ঠিক রাখা সুস্বাস্থ্যের জন্য অতি প্রয়োজনীয়। আপনার ওজন যদি হয় বেশি, তাহলে তা কমিয়ে ফেলার বিকল্প নেই। তাড়াহুড়া করে ওজন কমাতে গিয়ে অনেকেই বিপদের মুখোমুখি হন। শরীরের এই বাড়তি মেদ কিভাবে দূর করা যায় তার কয়েকটি সহজ উপায় পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো। একে গরমকাল, তার ওপর বৃষ্টির দেখা নেই। যার ফলে হাঁসফাঁস গরমের শিকার সাধারণ মানুষ। তবে এই সময় মনটা যেন রিফ্রেসিং কিছু জুস খেতে ইচ্ছা হতেই পারে। তাই এমন কিছু জুস খান যা কিনা হেলথি। এই গরমে পান করতে পারেন আমলকীর জুস। ভিটামিন সি ছাড়াও এই আমলকীর রসে রয়েছে আয়রন, ক্যালসিয়াম ও ফসফরাস।

চিকিৎসকরা জানান, এটি পরিপূর্ণ পুষ্টিগুণসমৃদ্ধ পানীয়। বর্তমানে কর্মব্যস্ত জীবনে সময়ের অভাবে ব্যায়াম করতে না পারা কিংবা অসচেতনতার কারণে পেটে মেদ জমে যায়। পেটে জমে থাকা অতিরিক্ত মেদ দূর করতে সহায়তা করবে আমলকীর জুস। এছাড়া আমাদের নানা রোগ মোকাবিলায় সাহায্য করে। নিয়মিত আমলকির জুস পানে রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকে, হজম ভাল হয়, কোলেস্টেরল ও শ্বাসকষ্টের সমস্যা কমে। ত্বকের বয়স হওয়া প্রতিরোধ করে ত্বকে জৌলুসও আনে আমলকি। তাহলে আসুন জেনে নিন কিভাবে বানাবেন আর কী কী উপকরণ লাগবে।

উপকরণ

আমলকী ৪টি

গোলমরিচের গুঁড়ো সামান্য 

মধু এক চা চামচ

বরফ  ৫ চা চামচ

জল ২ কাপ

কীভাবে বানাবেন:

প্রথমে আমলকী থেঁতলে নিয়ে এর সঙ্গে গোলমরিচের গুঁড়ো মিশিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন। এবার এতে দুই কাপ জল দিয়ে এক মিনিট ব্লেন্ড করুন। এর পর একটি গ্লাসে ঢেলে এর সঙ্গে মধু মিশিয়ে কিছুক্ষণ ফ্রিজে রেখে দিন। ফ্রিজ থেকে বের করে এর ওপর বরফ কুচি ছড়িয়ে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করুন ভিন্ন স্বাদের আমলকীর জুস।