চিনা স্পনসরে লাভ ভারতেরই, আইপিএল প্রসঙ্গে বিসিসিআই কর্তা 

চিনা স্পনসরে লাভ ভারতেরই, আইপিএল প্রসঙ্গে বিসিসিআই কর্তা 
আজ বাংলাঃ   ভারত-চিন সম্পর্ক নিয়ে যেমন জট অব্যাহত। তেমনই চলতি বছর আইপিএল কবে হবে সে ব্যাপারেও ক্রীড়া প্রেমীদের উৎসাহের অন্ত নেই। সেই সঙ্গে যুক্ত হয়েছে চিনা পণ্য, সামগ্রী বয়কটের ডাক। এদিকে আসন্ন আইপিএল (IPL)-এর টাইটেল স্পনসর আবার চিনেরই এক সংস্থা। তাই বিসিসিআই-কে কেন্দ্র করেও তৈরি হয়েছে চিন বিরোধী আওয়াজ। এই নিয়ে প্রশ্ন করা হয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (BCCI) কোষাধ্যক্ষ অরুণ ধুমলকে। তিনি ঘুরিয়ে বলেছেন, চিনা স্পনসর থাকলে প্রত্যক্ষভাবে লাভ ভারতেরই। দেশব্যাপী চিন বিরোধী প্রচার শুরু হলেও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড যে ওত সহজে চিনা স্পনসরকে ঝেড়ে ফেলতে পারবে না তা আগেই আন্দাজ করা গিয়েছিল। কারণ উক্ত কোম্পানির সঙ্গে দীর্ঘমেয়াদি চুক্তি রয়েছে বোর্ডের। চুক্তি অনুযায়ী  চলতি মরশুম শেষেও এই সংস্থাই থাকবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের স্পনসর হিসেবে। চুক্তি ভেঙে বেড়িয়ে আসতে হলে বোর্ডকে গুনতে হবে মোটা অংকের আর্থিক ধাক্কা। যা এই লকডাউনের বাজারে মোটেও সুখকর হবে না। অরুণ ধুমল বলেছেন, "চিনা স্পনসর আসলে ভারতীয় অর্থনীতিকেই পরোক্ষে সাহায্য করছে।" এছাড়াও আইপিএল কবে শুরু হবে এই ব্যাপারে বলতে গিয়ে তিনি বলেছেন, "বরাবরই বলে এসেছি যে আইপিএল হওয়ার পক্ষে কন্ডিশন যদি ঠিক থাকে ক্রিকেটারদের জন্য, একমাত্র তবেই বোর্ড সিদ্ধান্ত নেবে। আমরা এখনও আইপিএল নিয়ে সিদ্ধান্ত নিইনি। বোর্ডের তরফে সরকারি ভাবে এখনও অনির্দিষ্টকালের জন্য প্রতিযোগিতা পিছিয়ে দেওয়ার ঘোষণাই করা হয়েছে। যদি ক্রিকেটারদের পক্ষে নিরাপদ হয়, একমাত্র তবেই আইপিএল হবে।"