বেদ হাতে সুরিনামে রাষ্ট্রপতি পদে শপথ নিলেন চন্দ্রিকা প্রসাদ সন্তোখি

বেদ হাতে সুরিনামে রাষ্ট্রপতি পদে শপথ নিলেন চন্দ্রিকা প্রসাদ সন্তোখি
আজবাংলা   দক্ষিণ আমেরিকার দেশ সুরিনামের সোমবার নতুন রাষ্ট্রপতি সান্তোখিকে নির্বাচিত করে একনায়কতন্ত্র শাসনের অবসান ঘটিয়েছে । সান্তোখি একজন ভারতীয় বংশোদ্ভূত প্রক্তন পুলিশ প্রধান, যিনি এই বছরের মে মাসে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ভূমিধ্বস বিজয় লাভ করেছেন। ‌একবিংশ শতকে প্রাচীন বেদ-উপনিষদের ওপরেই ভরসা রেখেই এই প্রথম পৃথিবীর প্রাচীন গ্রন্থ বেদ হাতে নিয়ে দেশের রাষ্ট্রপতি পদে শপথ নিলেন আধুনিক গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে জয়ী হওয়া কোনও রাষ্ট্রপ্রধান। দক্ষিণ আমেরিকার সুরিনামের রাষ্ট্রপতি হলেন চন্দ্রিকা প্রসাদ সন্তোখি(Chan Santokhi) । বেদ হাতে শপথ নিলেন দেশকে নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য। তিনি ছিলেন সে দেশের পুলিশের প্রাক্তন প্রধান।সুরিনামের আয়তন এক লাখ ৬৫ হাজার বর্গকিলোমিটার। এটি দক্ষিণ আমেরিকার ক্ষুদ্রতম স্বাধীন রাষ্ট্র। সুরিনামের একমাত্র নগর এলাকা ও রাজধানীর নাম পারামারিবো।১৯৭৫ সালে রচিত সংবিধান অনুযায়ী ১৯৮০ সাল পর্সন্ত সুরিনামের প্রশাসন চালানো হয়। জনগণ দ্বারা নির্বাচিত রাষ্ট্রপতি ছিলেন সরকার প্রধান, এবং তাকে সহায়তা করতেন একটি মন্ত্রণালয় ও এক-কাক্ষিক আইনসভা। ১৯৮০ সালে সামরিক ক্যু-এর পর সংবিধান স্থগিত করা হয় এবং আইনসভা রদ করে দেয়া হয়। সামরিক বাহিনীর সদস্যদের নিয়ে গঠিত একটি কাউন্সিল দেশ শাসন করা শুরু করে। এখন অত্যন্ত কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে সুরিনাম। আর্থিক অবস্থা এবং কূটনৈতিক সম্পর্ককে তলানিতে এনে ফেলেছেন আগের সেনাশাসক। এমন অবস্থায় আতলান্তিক মহাসাগরের কোলে গড়ে ওঠা এই দেশের হাল ধরলেন চন্দ্রিকা প্রসাদ।এক সময়ের ডাচ কলোনি সুরিনামে প্রায় ছ’লক্ষ মানুষ বাস করেন। গোটা দেশ জুড়েই ভারতীয় সংস্কৃতির ছোঁয়া রয়েছে। তাঁদের মধ্যে ভারতীয় বংশোদ্ভূত বাসিন্দা প্রায় ২৮ শতাংশ। দেশের মোট জনসংখ্যার ২৩ শতাংশই হিন্দু। সেখানে একজন হিন্দু রাষ্ট্রপ্রধান বেদ হাতে শপথ নিচ্ছেন তা নিশ্চয় গুরুত্বপূর্ণ। এক হাতে বেদ সংহিতা নিয়ে ‘इदमहमनृतात् सत्यमुपैमि’ মন্ত্রোচারণ করে শপথ নেওয়ার এই দৃশ্য মনমুগ্ধকর।
বেদ সৃষ্টি হয়েছে ভারতে। আজকের ভারতে বেদ হাতে শপথ ব্যবস্থা নেই। কিন্তু ভবিষ্যতে হবে না তা বলা যায় না। সুরিনাম যে পথ দেখালো তা আগামীতে বিশ্বজুড়ে অনুসৃত হতেই পারে। এ নিয়ে আলোচনা চলতে পারে। তবে এখন চন্দ্রিকা প্রসাদজিকে অভিনন্দন জানান। https://www.youtube.com/watch?v=VZDcgrd1gnE