দিলীপ ঘোষের মন্তব্য দায়িত্বজ্ঞানহীন,দিলীপ ঘোষকে তোপ বাবুল সুপ্রিয়

আজবাংলা   বিতর্কিত এই মন্তব্য করে শিরোনামে দিলীপ ঘোষ। বিজেপি রাজ্য সভাপতির এই মন্তব্য ঘিরে রাজনৈতিক মহলে উঠেছে সমালোচনার ঝড়। তার জেরে চরম অস্বস্তিতে গেরুয়া শিবির। বিতর্কতি মন্তব্যের বিরোধিতা করলেন তাঁরই দলের সাংসদ ও কেন্দ্রের মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়৷ বাবুলের বক্তব্য,“দিলীপদা দায়িত্বজ্ঞানহীনের মতো কথা বলেছেন।” সোমবার সকালে দিলীপের মন্তব্য প্রসঙ্গে টুইট করেন বাবুল।

সেখানে তিনি লেখেন, ‘‘দিলীপ ঘোষের মন্তব্যের সঙ্গে দলের কোনও যোগ নেই। উনি যা বলেছেন তার পুরোটাই কাল্পনিক। যত বড় কারণই হোক না কেন, উত্তরপ্রদেশ, অসমে বিজেপি সরকার কখনওই মানুষকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়নি। দিলীপদা দায়িত্বজ্ঞানহীনের মতো মন্তব্য করেছেন।’ রবিবার নদিয়ার রানাঘাটে দলীয় সভা ছিল বিজেপির। তাতেই প্রধান বক্তা হিসাবে ছিলেন দিলীপ ঘোষ। CAA বিরোধী আন্দোলনের প্রসঙ্গ তুলে তিনি বলেন, ‘এই রাজ্যে একটাও গুলি চলেনি, লাঠি চলেনি, এফআইআর হয়নি। কাউকে গ্রেপ্তার করেনি পুলিশ। কিন্তু কেন করেনি? কারও বাপের সম্পত্তি নাকি? মানুষের করের টাকায় রেল-বাস, রেললাইন, রাস্তা করা হয়। সেসব নষ্ট করে দিয়েছে। অসম, উত্তরপ্রদেশ, কর্ণাটকে এই শয়তানদের আমাদের সরকার গুলি করে মেরেছে কুকুরের মতো। তুলে নিয়ে গিয়ে কেস দিয়েছে।

ওরা এখানে আসবে, খাবে, আর এখানকার সম্পত্তি নষ্ট করবে? জমিদারি পেয়েছে নাকি? লাঠিও মারব, গুলিও করব, জেলেও পাঠাবো। আর তাই করেছে আমাদের সরকার।’দিলীপের এই মন্তব্যের পরেই তীব্র সমালোচনা ওঠে বিভিন্ন মহলে৷ সেই প্রসঙ্গে বাবুল সুপ্রিয় বলেন, ‘দিলীপের মন্তব্য দায়িত্বজ্ঞানহীন৷ ওঁর মন্তব্যকে দল সমর্থন করে না৷ কোথাও কাউকে গুলি করে মারা হয়নি৷’ বিজেপির রাজ্য নেতৃত্ব অবশ্য দিলীপের পাশেই দাঁড়িয়েছেন। রাজ্য বিজেপির অন্যতম সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু বলছেন, ‘‘ভবিষ্যতে আমরা ক্ষমতায় এলে কী হবে সেটা ভবিষ্যৎই বলবে।তা নিয়ে এখন অত ভাবার দরকার নেই।তবে বাবুল সুপ্রিয়কে যাঁরা হেনস্থা করেছেন, আমরা তাঁদেরও যেমন ছেড়ে কথা বলব না, তেমনই যাঁরা সম্প্রতি গোটা রাজ্যে উপদ্রব করছেন, তাঁদেরও ছেড়ে কথা বলব না।”

এমন সমস্ত আপডেট পেতে লাইক দিন!