গার্লস হোস্টেলের সামনে দাঁড়িয়ে হস্তমৈথুন পুলিস কর্মীর, ভাইরাল ভিডিও

আজবাংলা  গার্লস হোস্টেলের সামনে দাঁড়িয়ে হস্তমৈথুন করছিলেন এক পুলিশকর্মী। হস্তমৈথুনের ভিডিও ভাইরাল হয় গত শনিবার। তার পরেই বিষয়টি নিয়ে হইচই শুরু হয়। আদিরাতলা থানায় বিষয়টি নিয়ে অভিযোগ দায়ে করা হয়েছে। হায়দরাবাদের টাটা ইনস্টিটিউট অব সোশ্যাল সায়েন্স-এর গার্লস হস্টেলের সামনে দাঁড়িয়ে হস্তমৈথুনের এই ঘটনাটি ঘটেছিল গত বছরের ২০ অক্টোবর। সে দিন বিকেল তিনটে নাগাদ এক ছাত্রী হস্টেল থেকে দোকানের দিকে যাচ্ছিলেন। তখনই তিনি এক ব্যক্তিকে হস্তমৈথুন করতে দেখেন। ওই ব্যক্তির পরনে ছিল পুলিশের উর্দি। সেই সময় ভিডিও করা হলেও ওই কাজ থেকে বিরত হননি ওই পুলিশ কর্মী। ওই ছাত্রী সাহায্যের জন্য চিৎকার শুরু করলে পালিয়ে যায় ওই অভিযুক্ত। বাধ্য হয়েই একমাত্র রাস্তা হিসেবে সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রতিবাদ করেন ছাত্রী। সেখান থেকেই এই ঘটনা সকলের সামনে আসে। প্রশাসনের তখনও টনক না নড়লেও, পরে পুলিশেরই এক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা ছাত্রীর সাথে নিজে থেকে যোগাযোগ করেই এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেন। এই কর্মকান্ডকে অত্যন্ত লজ্জাজনক ঘটনা হিসেবেই দাবি করেছেন তিনি। সেইসঙ্গে এটাও আশ্বাস দিয়েছেন যে এই ঘটনায় তদন্তের পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থাও নেওয়া হবে। প্রসঙ্গত, এই সূত্রে ছাত্রীর আরেক অভিযোগ যে কলেজ ক্যাম্পাস থেকে গার্লস হোস্টেলের যে দূরত্ব, সেই দূরত্বের মধ্যেই অনেক ছাত্রছাত্রীকে জোর করে শ্লীলতাহানীর চেষ্টাও করা হয়ে থাকে ঝোপঝাড়ের আড়ালে।