মহাদেবকে সন্তুষ্ট করতে এই জিনিসগুলো অর্পণ করুন, জীবন থেকে ঘুচে যাবে দুঃখ-কষ্ট

মহাদেবকে সন্তুষ্ট করতে এই জিনিসগুলো অর্পণ করুন, জীবন থেকে ঘুচে যাবে দুঃখ-কষ্ট

আজবাংলা       শিব ঠাকুরের কৃপা দৃষ্টি যদি একবার আপনার উপর পরে, তাহলে নিশ্চিন্ত...! আর্থিক অনটন থেকে জীবনের আরও নানাবিধ সমস্যা নিমেশে গায়েব! ভগবান শিবের অন্য নাম আশুতোষ অর্থাৎ যিনি অতি অল্পতেই যিনি সন্তুষ্ট ৷

একটি মাত্র বেলপাতা দিয়েই তাঁর মন জয় করা সম্ভব ৷ তিনি দেবাদিদেব মহাদেব মহাপ্রলয় থেকে সংসারে টুকিটাকি বিপর্যয় সবই তিনি রক্ষা করেন ৷ 

প্রতি সোমবার বাবার মাথায় জল ঢাললে অর্থাৎ বাবাকে স্নাহ করালে তিনি অত্যন্ত সন্তুষ্ট হন ৷ তবে শুধুই সোমবার নয় প্রতিটি গৃহস্থেই প্রতিদিনই শিবলিঙ্গে শিবের নাম করে স্নান অর্পণ করলে জীবন সুন্দর হয়ে ওঠে ৷ 

ভগবান শিবের পুজো করলে অনেক রকমের বাধা বিপত্তির হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যায় ৷ শিবের মহাশক্তিতে সমস্ত অশুভ শক্তি জীবন থেকে বিতাড়িত হয়ে থাকে ৷ ভগবান শিব জীবনের সমস্ত অশুভ শক্তির বিরুদ্ধে লড়ার  বড় বড় পথ দেখতে পান ৷ 

এবার জেনে নিন কি ভাবে মহাদেবকে সন্তুষ্ট করবেন | এই জিনিসগুলো অর্পণ করলে মহাদেব সন্তুষ্ট হবেন | এবং সকলের জীবন থেকে ঘুচে যাবে দুঃখ-কষ্ট | 

১. শিবের মাথায় গঙ্গাজল ঢালুন। আখের রস অর্পন করলেও মহাদেব খুব খুশি হন।

২. ধুতরো ফল অর্পণ করলে ঠাকুর খুব সন্তুষ্ট হন। ধুতরো ফুলও মহাদেবের ভারি পছন্দের।

৩. তিনটি পত্রযুক্ত নিখুঁত বেলপাতা শিবলিঙ্গের মাথায় দিতে হবে।

৪. ভাং বা সিদ্ধি শিবের খুব প্রিয় বলে মানা হয়। শিব পুজোর সময় একটি ভাং পাতা দিন বা ভাং বেটে দুধ ও গঙ্গাজলের সঙ্গে মিশিয়েও অর্পণ করতে পারেন।

৫. যদি কালসর্প যোগ থাকে, তা হলে রুপোর জোড়া সাপ নিবেদন করুন।