মোদীর বিরুদ্ধে বলতে গিয়ে এবার তড়িদাহত হলেন ইমরান খানের মন্ত্রিসভার সদস্য।

আজবাংলা শুক্রবার এক জনসভায় বক্তৃতা দিতে গিয়েছিলেন পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী শেখ রশিদ আহমেদ।ভারতের বিরুদ্ধে পরমাণু যুদ্ধের হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন ইমরান খান। আর তাঁর সুরেই, অক্টোবর-নভেম্বর মাস নাগাদ নয়াদিল্লির বিরুদ্ধে প্রত্যক্ষ যুদ্ধের হুঙ্কার দিয়েছেন পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী শেখ রশিদ আহমেদও।জানা গিয়েছে, শুক্রবার এক জনসভায় বক্তৃতা দিতে গিয়েছিলেন রেলমন্ত্রী শেখ রশিদ আহমেদ। স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতেই ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি সম্পর্কে কুরুচিকর মন্তব্য দিয়েই ভাষণ শুরু করেন তিনি। গোটা বক্তব্যে ভারতবিরোধিতার চড়া সুর তোলেন। বলেন, ''আমরা তোমাদের মোদির জারিজুরি সম্পর্কে সম্পূর্ণ অবগত রয়েছি।'' ছন্দ কাটে এরপরেই। বক্তৃতার সময় মাইক্রোফোনে হাত দিতেই আর্তনাদ করে ওঠেন পাক মন্ত্রী। বিদ্যুতের ঝটকা খেয়ে সঙ্গে সঙ্গে হাত সরিয়ে নেন রশিদ। নিজেকে সামলে নিয়ে হাসিমুখে হতভম্ব শ্রোতা ও সংবাদমাধ্যমের উদ্দেশে বলেন, ''ইলেকট্রিক শক খাওয়া সত্ত্বেও বলছি, মোদি এই জনসভার মেজাজ নষ্ট করতে পারবেন না।'' পাক মন্ত্রী মুখে মোদির বিরুদ্ধে কথা বললেও, তরিদাহত হয়ে তাঁর যে প্রতিক্রিয়া ছিল, সেই দৃশ্যই এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়।