আতঙ্কের মাঝেই বিশ্বজুড়ে ১২ শতাংশ ভিড় বাড়ল পর্ন ওয়েবসাইটে

porn website

আজবাংলা  বিশ্বজুড়ে মহামারি আকারে ছড়ানো করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে সরকারগুলো তাদের চেষ্টা আরও জোরদার করেছে। এর অংশ হিসেবে বুধবার পর্যন্ত ৩০০ কোটির বেশি মানুষ লকডাউনে। এর মধ্যে মারা গেছেন ২০ হাজারের বেশি মানুষ।করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে ২১ দিন দেশবাসীকে বাড়ির বাইরে না বেরনোর নির্দেশ দিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

এই পরিস্থিতিতে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত হচ্ছে ইন্টারনেট। কারণ, ঘরে বসে অফিসের কাজ বা সময় কাটাতে বেশির ভাগ মানুষের ভরসা ইন্টারনেটের উপরেই। ঘর-বন্দি লক্ষ লক্ষ মানুষের কাছে খবরের কাগজের চেয়ে খবরের ওয়েবসাইটের উপর নির্ভরশীলতা বেড়েছে এই মুহূর্তে। আর ইন্টারনেট নির্ভর বিনোদনের ক্ষেত্রে বিভিন্ন ডিজিটাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মের দিকেই ঝুঁকেছেন মানুষ।এই পরিস্থিতিতে একই কারণে ভিড় বেড়েছে পর্ন ওয়েবসাইটগুলিতেও।

সম্প্রতি ‘দি গার্ডিয়ান’-এ প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, মার্চ মাসে বিশ্বজুড়ে প্রায় ১২ শতাংশ ভিড় বেড়েছে পর্ন ওয়েবসাইটগুলিতে। জানা গিয়েছে,  মার্চ মাসে ইতালিতে প্রায় ৫৭ শতাংশ, ফ্রান্সে ৩৯ শতাংশ এবং স্পেনে প্রায় ৬১ শতাংশ ভিড় বেড়েছে পর্ন ওয়েবসাইটগুলিতে। কী ভাবে এই সব নিষিদ্ধ ওয়েবসাইটগুলিতে ভিড় বাড়ল? এক সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, গোটা যখন বিশ্ব লকডাউন সেই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে পর্ণহাব প্রিয়িয়াম পুরোপুরি ফ্রি করে দেওয়া হল।

অনলাইনে নিজেদের ব্যবসা যাতে আরও বিস্তার লাভ করে সেজন্যই এই উদ্যোগ। আগামী ২৩ এপ্রিল পর্যন্ত চলবে এই অফার। এর সঙ্গেই করোনা-আক্রান্ত যৌনকর্মীদের ২৫ হাজার মার্কিন ডলার অনুদান দেবে এই ‘পর্নহাব। নিউইয়র্কে ৫০ হাজার কর্মীদের মধ্যে বিনামূল্যে মাস্কও বিলি করেছে ।পর্ণহাবের তরফে সোশ্যাল মিডিয়ায় জানানো হয়েছে সকলে ভালো থাকুন, বাড়ীতে থাকুন।  আপনাদের কথা ভেবেই গোটা বিশ্বে প্রিমিয়াম ফ্রি করে দিয়েছি। বাড়ীতে থেকে উপভোগ করুন।

এমন সমস্ত আপডেট পেতে লাইক দিন!