কলকাতার ধাঁচে কার্নিভাল করার উদ্যোগ পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিস প্রশাসন ।

In the style of Calcutta carnival, East Bengal District Police Administration.
কলকাতার ধাঁচে কার্নিভাল করার উদ্যোগ পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিস প্রশাসন ।

কিন্তু নানা অছিলায় তা কোন এক অজ্ঞাত কারণে তা বন্ধ হয়ে যায় । বিগত বছর মহরম ছিল আইন শৃঙ্খলার অবনতি ও সাম্প্রদায়িক সদ ভাব নষ্ট হবে এই অজুহাতে কার্নিভাল বন্ধ করে দেওয়া হয়। এবছরও ঘটা করে রাজ্যের মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসের সামনে ঘোষণা করা হয় পূর্ব বর্ধমান শহরে দুর্গাকার্নিভেল করা হবে । শহরের সমস্ত পূজা কমিটির সভাপতি সম্পাদক ও পদাধিকারিকদের নিয়ে জেলা শাসক ও পুলিস সুপারের উপস্থিতি তে একটা একটা কমিটি গড়ে কোন রুট দিয়ে যাবে প্রাথমিক আলোচনায় তা ঠিক হয় । কিন্তু বাস্তবে দেখা গেল তার উল্টো চিত্র ।গত বছরের মত এ বছরও ব্যর্থ হল প্রশাসন শহরে দুর্গাকার্নিভেল করতে । সেখানে গত বছরের মত এ বছরও প্রশাসন কে চোখে আঙ্গুল দিয়ে নিজ উদ্যোগে দুর্গাকার্নিভেল করে দেখালেন। পূর্ব বর্ধমান পৌরসভার কাউন্সিলার তথা চেয়ারম্যান ইন কাউন্সিল খোকন দাস । ইচ্ছে থাকলে যে অসাধ্যকে সাধন করা যায় তা খোকন বাবু দেখিয়ে দিলে । এক দিকে যখন কলকাতার রেড রোডে দুর্গা কার্নিভালের চূড়ান্ত প্রস্তুতি চলছে ঠিক সেই সন্ধিক্ষণে পূর্ব বর্ধমান শহরের শেষ প্রান্তে একজন কাউন্সিলার করে দেখালেন তার এলাকায় দুর্গা কার্নিভাল। এ দিন বর্ধমান পৌরসভার চেয়ারম্যান ইন কাউন্সিল খোকন দাস জানিয়েছেন,এ বছর এলাকার ১৮ টি সার্বজনীন দুর্গামূর্তি নিয়ে কার্নিভালে অংশগ্রহণ করে কাঞ্চন নগরের কঙ্কালেশ্বরী কালীমন্দির প্রাঙ্গণে। তিনি আরও বলেন , ২৩ ও ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের পূজা গুলিকে নিয়ে এই কার্নিভালের আয়োজন করা হয় একই সাথে উদয় পল্লীর পঞ্চায়েত এলাকারও কয়েকটি পূজো কে আমরা আমাদের কার্নিভালে যুক্তকরি । অংশগ্রহণকারী ১৮ টি পূজা কমিটির মধ্যে ৩ টি পূজা কমিটিকে পুরস্কৃতও করা হয়।প্রথম স্থান অধিকারী কে ৫০ হাজার, দ্বিতীয় কে ৩০ হাজার এবং তৃতীয় স্থান অধিকারী কে ২০ হাজার টাকা পুরস্কৃত করা হয় । করে।এদিনের কার্নিভালে উপস্থিত ছিলেন পূর্ব বর্ধমান দক্ষিণ বিধান সভা কেন্দ্রের বিধায়ক ড. রবিরঞ্জন চট্টোপাধ্যায়, পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাপতি শম্পা ধারা, সহ সভাধিপতি দেবু টুডু, জেলা শাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তব, বিধায়ক অলক মাঝি বর্ধমান পৌরসভার চেয়ারম্যান স্বরূপ দত্ত সহ আরো অনেক। এইরকম উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন এলাকাবাসীরা।