পাকিস্তানকে ধাক্কা দিয়ে কুলভূষণ মামলায় আন্তর্জাতিক আদালতে জয় ভারতের

কুলভূষণ যাদব
কুলভূষণ যাদব

আজবাংলা কুলভূষণ যাদব মামলায় আন্তর্জাতিক আদালতে বড়সড় জয় ভারতের।কুলভূষণ যাদবের মৃত্যুদণ্ড রদ করে পুনর্বিচার করা উচিত পাকিস্তানের— পর্যবেক্ষণ আন্তর্জাতিক আদালতের। কুলভূষণকে কনস্যুলার অ্যাকসেস দেওয়ার নির্দেশও এ দিন দিয়েছে আন্তর্জাতিক আদালত। শুধু তাই নয়,  কনস্যুলার অ্যাকসেস না দিয়ে পাকিস্তান ভিয়েনা চুক্তি ভঙ্গ করেছে বলেও পর্যবেক্ষণ আন্তর্জাতিক আদালতের ১০ সদস্যের বিচারপতির প্যানেলের। রীমা ওমর টুইটারে দাবি করেছেন, ভারতের দাবি বিবেচনা করে তাদের পক্ষে রায় দিয়েছে আন্তর্জাতিক আদালত। ভারতীয় দূতদের সঙ্গে যোগাযোগের অধিকার পেয়েছেন কুলভূষণ যাদব। তাঁর ফাঁসির সাদা পর্যবেক্ষণের নির্দেশও দিয়েছে আন্তর্জাতিক আদালত। ততদিন পর্যন্ত কুলভূষণ যাদবের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা যাবে না। ইরান থেকে পাকিস্তানে গিয়ে গ্রেফতার হন ভারতীয় নৌবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত অফিসার কুলভূষণ। কিন্তু পাকিস্তান তাঁর বিরুদ্ধে গুপ্তচরবৃত্তি ও সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের অভিযোগ আনে। সেই মামলাতেই পাকিস্তানের সামরিক আদালত তাঁর মৃত্যুদণ্ডের নির্দেশ দেয়। সেই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করেই আন্তর্জাতিক আদালতে যায় ভারত। কুলভূষণের মৃত্যুদণ্ড মকুবের আর্জি জানিয়ে।এই মামলায় ভারতের পক্ষে আইনজীবী হরিশ সালভে পাকিস্তানের সামরিক আদালতের কার্যকলাপ নিয়েও আন্তর্জাতিক আদালতে প্রশ্ন তোলেন। তারই প্রেক্ষিতে তিনি যাদবকে দেওয়া মৃত্যুদণ্ডাদেশ খারিজ করার জন্য আন্তর্জাতিক আদালতে আর্জি জানান। অন্য দিকে, পাকিস্তানের আইনজীবী খায়র কুরেশি আন্তর্জাতিক আদালতকে ভারতের এই দাবি প্রত্যাখ্যান করার অনুরোধ করেন।
ভারতের অভিযোগ ছিল, এই ভাবেই ভিয়েনা চুক্তির শর্ত লঙ্ঘন করছে ইসলামাবাদ।ভারতের তরফে আন্তর্জাতিক আদালতে পাক সামরিক আদালতের ওই রায়কে ‘বিচারের নামে প্রহসন’ বলে অভিযোগ করা হয়।