বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় ভারতীয় জাল নোট তৈরির কারখানা, আটক তিন

Fake Note
জালনোট


আজবাংলা ঢাকা আগামি ইদুজ্জোহার সময় ১ কোটি টাকার জাল নোট ভারতের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল বাংলাদেশি চক্রের ধারনা গোয়েন্দা দের । মঙ্গলবার ডিএমপি গোয়েন্দা বিভাগ ঢাকার রামপুরা এলাকার পলাশবাগের এক বহুতল আবাসনের আটতলার একটি ফ্ল্যাটে তল্লাশি অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করে প্রায় ২০ লক্ষ টাকার ভারতীয় জালনোট।নোটের পাশাপাশি ঘটনাস্থল থেকে জব্দ করা হয়েছে একটি ল্যাপটপ, কালার প্রিন্টার, কালি, নোট ছাপানোর প্রচুর কাগজ, সিকিউরিটি স্ক্রিন বোর্ড এবং স্ট্যাম্প লাগানো ফয়েল পেপার । তিনজনকে জেরা করে গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন,  জাল নোট পাচারের কাজে ‘ক্যারিয়ার’ হিসেবে ব্যবহার করা হত যশোর, রাজশাহী ও চাঁপাই নবাবগঞ্জের ভারতীয় সীমান্তে গোরু পাচারকারী চক্রের সঙ্গে জড়িত সদস্যদেরকে । বাংলাদেশ গোয়েন্দাদের সামনে এখন একটি রহস্যজনক প্রশ্ন, জাল নোট তৈরির জন্যে অন্যান্য সামগ্রী যোগাড় করা গেলেও ভারতীয় রুপির ‘সিকিউরিটি থ্রেড’-এর ফয়েল পেপার কোথা থেকে পেল এই চক্র ? সম্পূর্ণ বিষয়টি সূক্ষ্মভাবে খতিয়ে দেখা হচ্ছে ।গোয়েন্দাদের প্রাথমিক সন্দেহ, এই ফয়েল পেপার পাকিস্তান থেকে আনা হয়েছে ।কারণ, জাল নোটের ঘটনা এবারই প্রথম নয়, এর আগেও বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় ভারতীয় জাল নোট তৈরির কারখানার খোঁজ পাওয়া গিয়েছিল । গোয়েন্দাদের তদন্তে ধরা পড়েছিল, সমস্ত ফয়েল পেপারগুলো পাকিস্তান থেকে চোরাই পথে আনা । পুনরায় সেই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটল কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে ।