ভারত-মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র হাতে হাত মিলিয়ে উগ্র ইসলামিক সন্ত্রাসবাদকে রুখে দেবে।ডোনাল্ড ট্রাম্প

Howdy Modi in Texas
হাউডি মোদীর মঞ্চে নরেন্দ্র মোদী ও ডোনাল্ড ট্রাম্প

আজবাংলা মোদীর আগে সন্ত্রাসবাদের মোকাবিলার বার্তা দিয়েছিলেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। বলেছেন, ”দুই দেশ একসঙ্গে যুদ্ধকৌশলের মহড়া দিয়েছে। উগ্র ইসলামিক সন্ত্রাসবাদকে রুখে দেবে ভারত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।” সে কথা মনে করিয়ে মোদী সকলে উঠে দাঁড়িয়ে ট্রাম্পের মন্তব্যে হাততালি দিতে অনুরোধ করে। গোটা হল স্ট্যান্ডিং ওভেশন দেয় মার্কিন প্রেসিডেন্টকে।সদ্য ভারত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনী যৌথ মহড়া দিয়েছে। সে কথা স্মরণ করিয়ে ট্রাম্প বলেন,”দুই দেশ একসঙ্গে যুদ্ধকৌশলের মহড়া দিয়েছে। উগ্র ইসলামিক সন্ত্রাসবাদকে রুখে দেবে ভারত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।” ট্রাম্পের এহেন বক্তব্যের পরই গোটা হল ফেটে পড়ে হাততালিতে। খোদ নরেন্দ্র মোদী উঠে দাঁড়িয়ে হাততালি দিলেন। ধন্যবাদ জানালেন প্রেসি়ডেন্ট ট্রাম্প। শুধু তাই নয়, ভারতে যখন নাগরিকপঞ্জি নিয়ে শোরগোল চলছে, ঠিক সেই সময়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের বক্তব্যেও উঠে এল অনুপ্রবেশ সমস্যার কথা। দুই দেশ একসঙ্গে সীমান্ত সুরক্ষায় কাজ করবে বলে জানান ট্রাম্প। তাঁর অভিমত, ভারত-মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে একসঙ্গে সীমান্ত সুরক্ষার ব্যবস্থা করতে হবে। অনু্প্রবেশ দেশের নিরাপত্তার জন্য বিপজ্জনক। সীমান্ত সুরক্ষা দেশের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ, এটা আমি বিশ্বাস করি। পাকিস্তানের নাম না নিয়ে হাউডি মোদীর মঞ্চে কড়া বার্তা দিলেন নরেন্দ্র মোদী। হুঙ্কার দিলেন, ”সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে নির্ণায়ক লড়াইয়ের সময় হয়ে এসেছে।”প্রধানমন্ত্রী বলেন, ”ভারত যা করছে, তাতে কিছু লোকের সমস্যা হচ্ছে, যারা নিজেদের দেশ সামলাতে পারছে না। সন্ত্রাসবাদের সমর্থক। সন্ত্রাসকে কোলেপিঠে মানুষ করে। ওদের পরিচয় গোটা দুনিয়া জানে। আমেরিকায় ৯/১১ বা মুম্বইয়ে ২৬/১১ হামলার চক্রীরা কোথায় পাওয়া যায়?

এমন সমস্ত আপডেট পেতে লাইক দিন!