খড়িবাড়িতে আদিবাসী গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ,গ্রেফতার চার

Kharibari for raping indigenous housewifeKharibari for raping indigenous housewife
ধর্ষণের অভিযোগ,গ্রেফতার চার

বিশ্বজিৎ সরকার,আজবাংলা দার্জিলিংঃ     শিলিগুড়ির মহকুমা পরিষদের অন্তরর্গত খড়িবাড়ি ব্লকের ভালুগাড়া সংলগ্ন এলাকার এক আদিবাসী গৃহবধূকে ধর্ষের অভিযোগ উঠল পাঁচজনের বিরুদ্ধে। এরপর শুক্রবার নির্যাতিতা তরফে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এবং শুক্রবারই অভিযোগের ভিত্তিতে চারজনকে গ্রেপ্তার করে খড়িবাড়ি থানার পুলিশ। ধৃতদের নাম বিশ্বনাথ বির্জা টিপুর বির্জা ,ভ্যালেন মির্জ ও প্রেম বির্জা। অপর এক অভিযুক্ত মাপু বির্জার খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। এবং পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে নির্যাতিতা অধিবাসী গৃহবধূর স্বামী পাশ্ববতী নেপালে শ্রমিকের কাজ করতো। অভিযোগ যে একমাস যাবৎ ওই গৃহবধূকে গাজিজোতের পাঁচ অভিযুক্ত রাতে মদ্যপ অবস্থায় এসে ধর্ষণ করে। এবং বলা হয় যে যদি এই বিষয়ে কাউকে জানালে। তাকে মেরে ফেলার হুমকিও দেওয়া হয়। এরপর নির্যাতিতা স্বামী বৃহস্পতিবার বাড়ি ফিরেন। এবং গোটা ঘটনার কথা তার স্বামীকে খুলে বলেন। এরপর নির্যাতিতার স্বামী অভিযুক্তদের সঙ্গে কথা বলতে যান। তখন তাকে বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ। এরপর নির্যাতিতার স্বামীকে চিকিৎসার জন্য খড়িবাড়ি গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এবং নির্যাতিতা নিরুপায় হয়ে খড়িবাড়ি থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এবং অভিযোগ পাবার সঙ্গে সঙ্গে তদন্তে নামে পুলিশ। এরপর খড়িবাড়ির বিভিন্ন এলাকায় দফায় দফায় অভিযান চালিয়ে চারজনকে গ্রেপ্তার করে খড়িবাড়ি থানার পুলিশ। এবং অপর এক অভিযুক্তের খোঁজে জোর তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। ধৃতদের এদিন শিলিগুড়ি মহকুমা আদালতে তোলা হবে।