এবার মারণ করোনায় আক্রান্ত হলেন দেশের ফার্স্ট লেডি

এবার মারণ করোনায় আক্রান্ত হলেন দেশের ফার্স্ট লেডি

আজ বাংলা: কয়েকদিন আগেই মারণ করোনার হাত থেকে মুক্তি পেয়েছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইর বোলসোনারো। তিনবার করোনার টেস্ট পজিটিভ আসার পর তার তৃতীয়বার তার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

তবে এবার করোনার থানা বসাল প্রেসিডেন্টের স্ত্রী’র শরীরে। প্রাণঘাতী ভাইরাসে আক্রান্ত বোলসোনারোর স্ত্রী তথা দেশের ফার্স্ট লেডি মিশেল বোলসোনারো। পাশাপাশি মন্ত্রিসভার আরও এক সদস্যের শরীরেও করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে।

বৃহস্পতিবার ব্রাজিলের প্রেসিডেন্টের কার্যালয় থেকে এক বিবৃতিতে এই খবর প্রকাশ্যে আনা হয়।

জানা গিয়েছে ‘ফার্স্ট লেডি মিশেল বোলসোনারোর করোনা নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। তবে তার শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল।‘

এদিন ফার্স্ট লেডি মিশেল বোলসোনারো ছাড়াও দেশের বিজ্ঞান ও 9 মন্ত্রী মার্কোস পন্টেসের শরীরেও করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে। পন্টেস হলেন বোলসোনারো সরকারের পঞ্চম মন্ত্রী যিনি মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন।

গত এপ্রিলে আমেরিকার ফ্লোরিডায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন জাইর বলসোনারো। ওই বৈঠক থেকে ফেরার পরেই ব্রাজিলের প্রেসিডেন্টের প্রতিনিধি দলের বেশ কয়েক জনের কোভিড পজিটিভ ধরা পড়ে। তাতে উদ্বিগ্ন হয়েই ১২ এপ্রিল থেকে ১৭ এপ্রিলের মধ্যে তিন বার নমুনা টেস্ট করতে পাঠান।

তিন বার রিপোর্ট নেগেটিভ আসায় তিনি বিস্মিত হন। তিনি ধরেই নিয়েছিলেন প্রতিনিধি দলের কয়েক জনের মতো তাঁর রিপোর্টও পজিটিভ হবে। তবে, চতুর্থ বারের রিপোর্টে তাঁর আশঙ্কাই সত্যি প্রমাণিত হয়।

উল্লেখ্য, এদিকে ব্রাজিলে ক্রমশ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। 1কলকাতা মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, দেশে একদিনেই নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৬৯,০৭৪ জন এবং প্রাণ হারিয়েছেন ১,৫৯৫ জন।