খুলে গেল, চিনে করোনার উৎসস্থল উহানের বন্য প্রাণীর বাজার

আজবাংলা     চিনের বিখ্যাত বন্য প্রাণীর বাজার আবার খুলছে বলে সূত্রের খবর। এই বাজারকে কেন্দ্র করে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের জন্য গত পয়লা জানুয়ির পর থেকে টানা বন্ধ ছিল উহানের বিখ্যাত হুয়ানান সিফুড হোলসেল মার্কেট। তবে বাজারের মধ্যেই নয়, মূল মার্কেট থেকে অনতিদূরেই খুলছে দোকানগুলো। প্রায় ১১২ রকম প্রাণী কেনাবেচা চলে এই মার্কেটে। জ্যান্ত পশুপাখি কেনা ছাড়াও, পশুপাখির মাংশ কেনার জন্যও বহুলোকের ভরসা হুয়ানানের হোলসেল মার্কেট।চিন সরকার বাজারটিকে অন্য জায়গায় সরিয়ে নিয়েছে বলে দাবি। এখন হুয়ানান সিফুড হোলসেল মার্কেট আগের যায়গায় না বসে, উত্তর হানকো সীফুড মার্কেটের সঙ্গে বসছে বলে জানা গিয়েছে। এখানে পশুপাখির মাংশের সাথে জীবিত নানান সামুদ্রিক মাছও বিক্রি হচ্ছে বলে জানানো হয়েছে। নতুন জায়গায় বাজার বসানো বিক্রেতারা আশার আলো খুঁজে পেয়েছেন। তাঁদের কথামতো বাজার বন্ধের জন্য একেবারেই ভাতে মারা পরছিলেন তাঁরা। তবে এখন আশা কয়েকদিন পরেই তারা বাজারটি পুরনো জায়গায় নিয়ে যেতে পারবেন।প্রসঙ্গত, এই বাজারে মোরগ, শূকর, মহিষ, শিয়াল, কোয়ালা, কুকুর, ময়ূর, ভেড়া, হাঁস, খরগোশ, উটপাখি, ইঁদুর, হরিণ, সাপ, ক্যাঙ্গারু, কুমির, বিছে, কচ্ছপ, উট, কুমির, গাধা , ব্যাঙ ছাড়াও নানান পোকামাকড়ের মাংস বিক্রি হত। কেজি কেজি ব্যাঙ-সাপ'ও কেনাবেচা চলত এই বাজারে। পশুপাখিদের মল-মূত্রের জন্য খুবই নোংরা হয়ে থাকত বাজার এলাকা। তাই পরিচ্ছন্নতার প্রশ্নেই করোনার প্রাদুর্ভাবের পর চিন সরকারকে বাজার বন্ধ করতে হয়।