ত্রিপুরা কংগ্রেসের সভাপতির পদথেকে ইস্তফা দিলেন প্রদ্যোত্ কিশোর মাণিক্য দেববর্মা।

সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে প্রদ্যোত্ কিশোর মাণিক্য দেববর্মা
সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে প্রদ্যোত্ কিশোর মাণিক্য দেববর্মা

আজবাংলা আগরতলা, রাজ্যে নাগরিকপঞ্জী চেয়ে গত ২২ অক্টোবর সুপ্রিম কোর্টে একটি পিটিশন ফাইল করেন তিনি। তার পর থেকেই তাঁর সঙ্গে দলের দূরত্ব বাড়তে থাকে। দেববর্মা নাগরিকপঞ্জীকে সমর্থন করায় বিপাকে পড়ে যায় দল। তাঁকে ওই পিটিশন প্রত্যাহার করতে বলা হয়। কিন্তু দিল্লিতে সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে সাক্ষাত করে জানিয়ে দিয়ে আসেন, ওই আবেদনপত্র প্রত্যাহার করবেন না বরং পদত্যাগই করতে চান তিনি।কংগ্রেসের হাইকমান্ডের সঙ্গে সাক্ষাত করার পর পদ ছাড়লেন ত্রিপুরা কংগ্রেসের সভাপতি প্রদ্যোত্ কিশোর মাণিক্য দেববর্মা। মঙ্গলবার এক ফেসবুক পোস্টে দেববর্মা লেখেন, বহুদিন পর সকালটা খুবই হালকা লাগছে। আজ আর কোনও মিথ্যেবাদী বা দুর্ণীতিগ্রস্থ লোকের কথা শুনতে হবে না। কিংবা দলের কেউ আর পেছন থেকে ছুরি মারতে পারবে না। অথবা হাইকমান্ডের কাছ থেকে শুনতে হবে না কীভাবে দুর্ণীতিগ্রস্থদের দলে ঢোকাতে হয়। গোষ্ঠীকোন্দলের মধ্যেও আর পড়তে হবে না। প্রদ্যোত্ কিশোর মাণিক্য দেববর্মা বলেন পদ ছেড়েছি ঠিক কথা তবে অন্য কোনও দলে যোগ দিচ্ছি না। কোনও পদের থেকে আমার মধ্যেকার রাজা অনেক বেশি শক্তিশালী।

এমন সমস্ত আপডেট পেতে লাইক দিন!