স্মিথের পাশে দাঁড়িয়ে সঙ্গাকারা বললেন আইসিসি প্রধান হওয়ার আদর্শ ব্যক্তি সৌরভই

স্মিথের পাশে দাঁড়িয়ে সঙ্গাকারা বললেন আইসিসি প্রধান হওয়ার আদর্শ ব্যক্তি সৌরভই
আজবাংলা    আইসিসির চেয়ারম্যান পদে দক্ষিণ আফ্রিকার প্রাক্তন অধিনায়ক গ্রেম স্মিথের মতোই শ্রীলঙ্কার প্রাক্তন অধিনায়ক কুমার সঙ্গাকারাও চাইলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কে।গ্রেম স্মিথের মতো সঙ্গাকারাও আইসিসির সর্বোচ্চ পদে দেখতে চাইছেন সৌরভকে। সঙ্গার কথায়, “আমার মনে হয় সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় পরিবর্তন আনতে পারবে। আমি দাদার মস্ত বড় ফ্যান। আর তা শুধু ক্রিকেটার হওয়ার কারণেই নয়। আমার মনে হয় সৌরভের একটা দুর্দান্ত ক্রিকেট মস্তিষ্ক রয়েছে। ওর হৃদয়ে ক্রিকেটের স্বার্থই সবার আগে থাকে। আর তা বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট বা ইসিবি বা শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বা অন্য কোনও দেশের বোর্ড বা আইসিসি, যে দায়িত্বই নিতে হোক না কেন। ”কুমার সঙ্গাকারা আরও বলেছেন, “মানসিকতা পুরোপুরি 3 হওয়া উচিত। আমি কোথা থেকে আসছি, তা ভেবে পক্ষপাতিত্ব করা ঠিক নয়। আমি ভারতীয় বা শ্রীলঙ্কান হই বা অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড থেকে আসি না কেন, এটা বুঝতে হবে যে, আমাকে সমস্ত ক্রিকেট খেলিয়ে দেশের স্বার্থেই কাজ করতে হবে।” কেন সৌরভের আইসিসি-তে আসা দরকার? সঙ্গাকারা বলেছেন, “ক্রিকেট খেলার ভিত্তি হল সমর্থক ও বিশ্ব জুড়ে থাকা দর্শক। আমার মনে হয় সৌরভ এই দায়িত্ব খুব ভাল ভাবে পালন করবে। বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগেই সৌরভের কাজ আমি লক্ষ্য করেছি। এমনকি, প্রশাসক হিসেবে কাজ করা ও কোচিং দেওয়ার আগেও বিশ্ব জুড়ে ক্রিকেটারদের সঙ্গে ও সম্পর্ক তৈরি করত দারুণ ভাবে। এমসিসি ক্রিকেট কমিটিতেও দেখেছি ওকে। আমার মনে তো কোনও সন্দেহ নেই যে আইসিসি চেয়ারম্যান পদে সৌরভ দুর্দান্ত প্রার্থী।”সম্প্রতি আইসিসির চেয়ারম্যান পদ ছেড়ে দিয়েছেন শশাঙ্ক মনোহর। মনোহরের পদত্যাগের পর সম্ভাব্য আইসিসি চেয়ারম্যান হিসেবে উঠে আসছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের প্রেসিডেন্ট সৌরভের নাম। যদিও তিনি নিজে এই ব্যাপারে কোনও মন্তব্য করেননি। সৌরভ এ দিকে আবার সুপ্রিম কোর্টে বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট পদে মেয়াদ বৃদ্ধির আবেদন করেছেন। লোঢা কমিশনের সংস্কার অনুসারে 12 সংস্থা ও বোর্ড মিলিয়ে ছয় বছর পদে থেকেছেন তিনি। এ বার তিন বছরের জন্য কুলিং অফে যাওয়ার কথা তাঁর। এর বিরুদ্ধেই আবেদন করেছে বোর্ড। সেই বিষয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি সুপ্রিম কোর্ট।