মহরমের তাজিয়ার তলোয়ারের আঘাতে জখম চন্দননগর থানার এসআই রাজীব পাল

চন্দননগর থানার পুলিশ কর্মী রাজীব পাল
চন্দননগর থানার পুলিশ কর্মী রাজীব পাল

আজবাংলা চন্দননগর মহরমের মিছিল থেকে তলোয়ার ছিটকে আহত হলেন চন্দননগর থানার পুলিশ কর্মী রাজীব পাল।মহরমে উপলক্ষে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বেড়িয়েছে তাজিয়ায়। তাজিয়ার সঙ্গে চলছে লাঠি ও অস্ত্র খেলার প্রদর্শন। যদিও রাজ্যে অস্ত্রের প্রদর্শন নিষিদ্ধ করেছে সরকার। হুগলির চন্দননগরে সরষে পাড়ার কাছ দিয়ে মহরম উপলক্ষে বেরিয়েছিল তাজিয়া। অস্ত্রের ব্যবহার বা প্রদর্শন সরকার নিষিদ্ধ করা সত্ত্বেও চলেছিল নানারকম খেলা। হঠাৎ একটি তলোয়ার ছিটকে গিয়ে পরে নিরাপত্তা রক্ষী চন্দননগর থানার এসআই রাজীব পালের গায়ে, গুরুতর জখম হন তিনি। মাথায় ও ঘাড়ে আঘাত লাগে খুব।রাজীব পালকে তৎক্ষণাৎ নিয়ে যাওয়া হয় চন্দননগর মহকুমা হাসপাতালে যেখানে তার ১১টি সেলাই পরে। চন্দননগরের পুলিশ কমিশনার হুমায়ুন কবীর রাজীব পালকে দেখতে যান হাসপাতালে। ঘটনার নিন্দা হয়েছে রাজ্যজুড়ে। শুধু মহরমের দিনই নয়, মহরমের আগের দিন অর্থাত্ সোমবার হুগলি ইমামবাড়ায় এই একই চিত্র দেখা গিয়েছে। দফায় দফায় দলের পর দল ব্যান্ডেল স্টেশন থেকেই ইমামবাড়া সৌধ অবধি লাঠি ও অস্ত্র নিয়ে মিছিল করে বেরিয়েছে কয়েক দল যুবক। অনেকের হাতেই কাটারির মতো বড় বড় অস্ত্র দেখা গিয়েছে। যদিও সে দিন রাস্তায় কোনও কর্তব্যরত পুলিশকে দেখা যায়নি। তবে সরকারি নিষেধাজ্ঞাকে উপেক্ষা করে কী ভাবে মহরমের দিন এখনও অবধি অস্ত্র খেলা দেখানো হয় সে বিষয়েও
উঠছে প্রশ্ন ।