করোনা আতঙ্কের মাঝে কলকাতায় বাড়ছে সোয়াইন ফ্লু-র দাপট, আক্রান্ত ১২

আজবাংলা   গোটা দেশজুড়ে নভেল করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। শুক্রবার সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় ৮৫-এ। পশ্চিমবঙ্গে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত সন্দেহে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতাল, উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ-সহ রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বেশ কয়েকজন চিকিৎসাধীন। তার মধ্যেই আরেক নতুন উপদ্রব সোয়াইন ফ্লু। এইচওয়ানএনওয়ানে (ওই রোগের ভাইরাস) আক্রান্ত ১২ জন মহানগরীর সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। মেটিয়াবুরুজের দু’টি পরিবারের ছ’জন ভর্তি হয়েছেন বেলভিউ হাসপাতালে। বুধবার একই পরিবারের দু’জন পুরুষ এবং এক মহিলা ভর্তি হন। পরের দিন একই পরিবারের বাবা, মা ও সন্তান জ্বরে আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসক অমিতাভ নন্দীর কাছে আসেন। তাঁদের নমুনা পরীক্ষা করা হলে সোয়াইন ফ্লু ধরা পড়ে। বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে ওই রোগে আক্রান্ত দু’জনের চিকিৎসা চলছে। ইনস্টিটিউট অব চাইল্ড হেল্‌থে এক জন এবং মুকুন্দপুর আমরিতে ভর্তি আছেন তিন জন। আমরি সূত্রের খবর, তিন জনের মধ্যে এক জন নার্স। মণিপুরের ওই বাসিন্দা মঙ্গলবার হাসপাতালে ভর্তি হন। সে-দিন হুগলির ১০ বছরের একটি শিশুও ভর্তি হয়। ওড়িশার দু’বছরের একটি শিশুর চিকিৎসা চলছে গত ৫ মার্চ থেকে। আমরি-কর্তৃপক্ষ জানান, ওই তিন জন ছাড়াও গত এক সপ্তাহে বহির্বিভাগে আসা আরও ১০ জনের সোয়াইন ফ্লু পজ়িটিভ ধরা পড়েছে। সৌদি আরব থেকে আসা আরও এক যুবক, যার বাড়ি মুর্শিদাবাদের হরিহরপাড়ায়, তাঁকেও দমদম বিমানবন্দর থেকে করোনা আক্রান্ত সন্দেহে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে আনা হয়। সেখানে আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি রাখা হয় সেই যুবককে। মঙ্গলবার তার লালা রসের নমুনা বেলেঘাটা নাইসেডে পাঠানো হয়। রিপোর্টে জানা গিয়েছে, তিনিও সোয়াইন ফ্লুতে আক্রান্ত হয়েছেন। দুই যুবকের সোয়াইন ফ্লুয়ের চিকিৎসা চলছে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে।