বজ্রবিদ্যুৎ সহ ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি পূর্বাভাস আবহাওয়া দফতরের

আজবাংলা    আলিপুর আবহাওয়া দফতর আগেই জানিয়েছিল যে চলতি সপ্তাহে উত্তরবঙ্গে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সেই পূর্বাভাস মিলে গেল। তুমুল বৃষ্টি উত্তরবঙ্গে। আর তার জেরে তিস্তায় দেখা দিয়েছে জলস্ফীতি। জারি করা হয়েছে হলুদ সতর্কবার্তা। হাওয়া অফিস সূত্রে খবর, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর থেকে একেবারে সুদূর রাজস্থান পর্যন্ত একটি নিম্নচাপ অক্ষরেখা রয়েছে। যার জেরে বঙ্গোপসাগর থেকে প্রচুর পরিমাণে জলীয় বাষ্প ঢুকছে রাজ্যে। পাশাপাশি ঘূর্ণাবর্তও সৃষ্টি হয়েছে ওডিশায়। সিকিম পাহাড়ে অবিরাম বৃষ্টির জেরে তিস্তায় জলস্ফীতি দেখা দিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে বৃহস্পতিবার বিকেলে তিস্তার দোমহনী থেকে বাংলাদেশ পর্যন্ত অসংরক্ষিত এলাকায় হলুদ সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে বলে  জানিয়েছে উত্তরবঙ্গ বন্যা নিয়ন্ত্রণ দফতর। উল্লেখ্য, ইতিমধ্যেই গজলডোবা তিস্তা ব্যারাজ থেকে ২২৩২.৬৮ কিউমেক জল ছাড়া হয়েছে।প্রসঙ্গত, জোড়া ঘূর্ণাবর্তের জেরে তুমুল বৃষ্টি হচ্ছে জলপাইগুড়ি সহ উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলায়। আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস বলছে, আগামী ২৪ ঘণ্টা‌ও চলবে বজ্রবিদ্যুৎ সহ ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি।আগামী রবিবার পর্যন্ত অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার-সহ কয়েকটি জেলায়। বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি হবে মালদা ও দুই দিনাজপুরে। মোটের উপর রবিবার পর্যন্ত উত্তরবঙ্গের সব জেলাতেই ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে বলে খবর।